শিরোনাম
খুলনায় দুই খালাতো বোনকে গন-ধর্ষণের অভিযোগে আটক-৩ পাথরঘাটা অস্বাভাবিক আকৃতি নিয়ে শিশুর জন্ম শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন: অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ দাউদকান্দিতে দুর্বৃত্তদের হামলায় সাংবাদিক গুরুত্বর আহত বিএনপির পায়ের নিচে মাটি নেই… কৃষিমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক লাকসামে রোবটিক্স ও প্রোগ্রামিং রিফ্রেসার্স প্রশিক্ষণ কর্মশালা বালিয়াডাঙ্গীর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে দুদকে তলব কুমিল্লা সিটি নির্বাচনে আওয়ামীলীগ প্রার্থী রিফাত ও বর্তমান মেয়র সাক্কুসহ ৬ জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ নারীদের রাজনৈতিক নাগরিক সচেতনতা কার্যক্রম সভা অনুষ্ঠিত ভোলায় হাসপাতালের নির্মাণাধীন ভবনের ছাদ থেকে পড়ে শ্রমিকের মৃত্যু
বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈনিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ ।

কক্সবাজারে ছুরিকাঘাতে কাউন্সিলর পূত্র খুন

Muktir Lorai / ১০১ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় সোমবার, ১৬ আগস্ট, ২০২১

সায়মন সরওয়ার কায়েম, কক্সবাজার: কক্সবাজার শহরের বৈদ্যঘোনা-বইল্যা পাড়া এলাকায় উকৌশল্যা অগ্যমেধা বৌদ্ধ মন্দির কম্পাউন্ডে মাদকসেবী কিশোর গ্যাং এর ছুরিকাঘাতে কাউন্সিলর পুত্র সেজান নিহত হয়েছে। তবে সেজানও মাদকাসক্ত ছিলে এলাকার লোকজন জানান।
১৬ আগষ্ট সোমবার সকাল সাড়ে দশটায় এই ঘটনাটি ঘটে।
নিহত ওই যুবকের নাম শাহজাহান প্রকাশ সেজান তার পিতা নুর মোহাম্মদ কক্সবাজার শহরের ১১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর।
ঘটনা প্রসঙ্গে সেজানের পিতা কাউন্সিলর নূর মোহাম্মদ কিছুই জানেন না বলে জানান। তিনি বলেন, হত্যাকাণ্ডের ঘটনা শুনে তিন হাসপাতালে আসেন।
কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি শেখ মুনিরুল গিয়াস বলেন, ঘটনার সাথে কারা জড়িত কিভাবে জড়িত এখনো জানা যায়নি। জড়িতদের আইনের আওতায় আনার চেষ্টা চলছে।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সেজানকে ওই এলাকায় নিয়ে আসা তার দূরসম্পর্কিত এক আত্মীয় খোরশেদ আলম নামের এক যুবককে পুলিশ ইতিমধ্যে হেফাজতে নিয়েছে।
স্থানীয় জনসাধারণ জানায়, সম্প্রতি বৌদ্ধমন্দির সংলগ্ন কম্পাউন্ড এলাকাটি মাদকসেবী ও ছিনতাই কারীদের নিরাপদ আস্তানায় পরিণত হয়েছে। সেখানে প্রায় সময় মাদকসেবী ও কিশোর গ্যাং সদস্যরা আড্ডা দিয়ে থাকে।
সেজানকে হয়তো ওই আড্ডায় নিয়ে এসেছিল কেউ। দুই গ্রুপের মতবিরোধ ও কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে প্রতিপক্ষের আবু তাহের নামে একজন মাদকাসক্ত তাকে ছুরিকাঘাত করে হত্যা করে। তাহের কক্সবাজার শহরে পুলিশ হত্যা মামলার এক নাম্বার আসামী বলে জানা গেছে।
লাশ কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেয়া হলে খবর পেয়ে সেখানে যান সেজানের পিতা কাউন্সিলর নুর মোহাম্মদ ও তার মাতা। দুজনেই কান্নায় ভেঙ্গ পড়েন।
এলাকাবাসী জানান, সেজান নুর মোহাম্মদ মাঝুর দ্বিতীয় স্ত্রীর ছেলে। তাকে তার মামা ও স্বজনরা লালন পালন করত। সেজান কক্সবাজার বায়তুশ শরফে একসময় পড়ালেখা করতো। পরে মাদকাসক্ত হওয়ার পর পড়ালেখা ছেড়ে দেন। তার কারনে শহরের মানুষ অতিষ্ট ছিল।


এই বিভাগের আরো সংবাদ
Translate »
Translate »