শিরোনাম
ডেউয়াতলী গ্রামের মরহুম মোঃ কোব্বাদ খান ও মান্নান চৌধুরী পরিবারবর্গকে নিয়ে সফিউল্লা খন্দকারের মানহানিকর বক্তব্যের প্রতিবাদ পলাশ শিল্পাঞ্চল সরকারি কলেজ শিক্ষক ও কর্মচারিদের বিক্ষোভ বাস্তবময় জীবনের বাস্তবতা…অনামিকা চৌধুরী রু লাকসামে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে আগুন : প্রায় ৭লাখ টাকার ক্ষতি মুরাদনগরে সাব-রেজিস্ট্রারের কার্যালয়ের অভ্যন্তরীন প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত পদ্মা সেতু আমাদের জাতিকে মাথা উঁচু করে দাঁড়ানোর সুযোগ করে দিয়েছে দীঘিনালায় জেলেদের মাঝে ছাগল বিতরণ গোমস্তাপুরে চাঞ্চল্যকর কুলুলেস ‍‍`মেহেরুল‍‍` হত্যা মামলার আসামি আটক তরুন উদ্যোক্তা নাসিমা জাহান বিনতী’র গ্লোবাল ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড অর্জন পলাশে চাচীর সাথে পরকিয়া করতে গিয়ে প্রেমিকের হাতের কব্জি কর্তন
বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈনিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ ।

যারা দেশের স্বাধীনতা ও ইতিহাস ঐতিহ্য সংস্কৃতি বিরোধী তারাই ভাস্কর্য ভাংচুর করছে

Muktir Lorai / ১১০ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় সোমবার, ২১ ডিসেম্বর, ২০২০

স্টাফ রিপোর্টারঃ
বাংলাদেশের স্বাধীন ও ইতিহাস ঐতিহ্য সাংস্কৃতি বিরোধীরা বঙ্গবন্ধু ও বাঘা যতিনের ভাস্কর্য ভাংচুর করেছে যারা প্রতিবাদে ন্যাপ ভাসানী আজ ২০ ডিসেম্বর ২০২০ইং রোজ রবিবার সকাল ১০ টায় জাতীয় প্রেস ক্লাব চত্তর এক মানববন্ধনের আয়োজন করে। মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন ন্যাপ ভাসানীর চেয়ারম্যান এম.এ. ভাসানী। বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ জাতীয় গণতান্ত্রিক লীগের সভাপতি এম.এ. জলিল, বাংলাদেশ কনজাভেটিভ পার্টির চেয়ারম্যান, আনিছুুর রহমান দেশ, সোস্যাল অ্যাক্টিভেটিস ফোরামের সমন্বয়ক, মুফতি মাছুম বিল্লাহ নাফিয়ী, জাতীয় স্বাধীনাতা পার্টির চেয়ারম্যান, মিজানুর রহমান মিজু, জনতা ফ্রান্টের চেয়াম্যান আবু আহাদ দিপু মির, ন্যাপ ভাসানীর মহাসচিব, ইঞ্জিনিয়ার রেদোয়ান শিকদার, আওয়মী লীগ নেতা আ.স.ম মোস্তফা কালামসহ ন্যাপ ভাসানী প্রচার সম্পাদক মোঃ বাশার শরিফ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ। সভাপতি বক্তব্যে বঙ্গদীপ এম এ ভাসানী বলেন, যারা বাংলাদেশের স্বাধীনতা ইতিহাস ঐতিহ্য ও আমাদের সংস্কৃতি বিরোধীতাকারী তারাই সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ট বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বৃট্রিশ বিরোধী বপ্লবী নেতা বাঘা যতিনে ভাস্কর্য ভাংচুর করেছে তারা বাংলাদেশ বিরোধী ও বাংলাদেশের উন্নয়ন মেনে নিতে পারছে না, ৭১ এর সেই পারাজিত শক্তি ও তাদের ঘাতক দালালরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে আজকে ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করার জন্য ভাস্কর্যকে মূর্তির সাথে মেলানোর অপচেষ্টা করছে। খোদ সৌদি আরবে আব্দুল আজিজের ভাস্কর্য আছে, তুরস্কেও কামাল আতাতুর্ক ও কবি জালাল উদ্দিন রুমির ভাস্কর্যসহ মুসলিম দেশ সমূহের অসংখ্য ভাস্কর্য রয়েছে। এগুলি আমাদের নতুন প্রজন্মকে অনুপ্রেরণা যোগায় এবং নবউদ্দমে এগিয়ে যাওয়ার পথ দেখায় কাজেই যারা ভাস্কর্য বিরোধী তারা ইসলাম এবং কুরআন এর সঠিক ব্যাখ্যা দিচ্ছেন না। অপব্যাখ্যা দাঁড় করিয়ে কোন না কোন অপশক্তির পক্ষে কাজ করছে। আমরা যে কোন মূল্যে তাদের প্রতিহত করবোই করবো। এব্যাপারে দেশবাসী কে আরো বেশি সচেতন ও ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানাই।


এই বিভাগের আরো সংবাদ
Translate »
Translate »