বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈনিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ ।

সাতক্ষীরায় আ.লীগের দুই গ্রুপে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দফায় দফায় সংঘ, বোমা বিস্ফোরণ

Muktir Lorai / ১২৪ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় সোমবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০২০

সাতক্ষীরা প্রতিনিধিঃ
সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলায় আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দফায় দফায় সংঘর্ষ ঘটেছে। এসময় অন্তত ১০-১২টি বোমা বিস্ফোরণ, দোকান ভাঙচুর ও একটি বাড়িতে আগুন দেওয়া হয়েছে। ঘটনায় জড়িত থাকায় পুলিশ সাইফুল ইসলাম নামের একজনকে আটক করেছে।

রোববার (১৩ ডিসেম্বর) রাত ৮টা থেকে রাত ১টা পর্যন্ত উপজেলার খাজরা ইউনিয়নের কাপসন্ডা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা রমজান এবং রউফের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। রোববার রাতে খাজরা ইউনিয়নের চেউটিয়া গ্রামের জিয়াদ বিশ্বাসের ছেলে আবু রায়হান ইটের ভাটায় যাওয়ার উদ্দেশ্যে রওনা হন। কাপসন্ডা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে পৌঁছালে শত্রুতার জেরে রউফ গ্রুপের লোকজন তাকে বেদম মারপিট করে। এ ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে রমজান ও রউফের গ্রুপ রাম দা, লাঠিসোটা ও বোমা নিয়ে মুখোমুখি অবস্থান নেয় এবং তাদের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। ভাঙচুর করা হয় আনারুল, কবীর, হোসেনসহ কয়েকজনের দোকান। আগুন দেয়া হয় কামরুল নামে একজনের বাড়িতে। এছাড়াও ১০-১২টি বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। রাতেই আহত আবু রায়হানকে আশাশুনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

আশাশুনি উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান অসীম বরণ চক্রবর্তী জানান, রমজান ও রউফ উভয়ই আওয়ামী লীগের নেতা। আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা ঘটেছে।

আশাশুনি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) গোলাম কবীর জানান, ঘটনাটি জানার পর রাত একটার দিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে পুলিশ। রমজান ও আব্দুর রউফের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। রায়হান নামের একটি ছেলেকে মারপিটের ঘটনাকে কেন্দ্র করে এ পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। ঘটনায় জড়িত থাকায় একজনকে আটক করা হয়েছে।

এছাড়া ক্ষতিগ্রস্তদের অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বর্তমানে পরিস্থিতি তাদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে বলেও জানান তিনি।


এই বিভাগের আরো সংবাদ
Translate »
Translate »