ঢাকা ০৪:২৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রচণ্ড গরমে অতিষ্ঠ হয়ে সূর্যের বিরুদ্ধে মামলা!

প্রচণ্ড গরম, রক্ষা পেতে সূর্যের বিরুদ্ধেই মানসিক ও শারীরিক নির্যাতনের মামলা করে বসলেন চিত্র-বিচিত্রের দেশ ভারতের মধ্যপ্রদেশ রাজ্যের এক বাসিন্দা। শিবপাল সিং নামের এক ব্যক্তি এই আজব মামলা করেছেন রাজ্যের শাজাপুর থানায়। তিনি ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৯৭৩ সালের ১৫৪ ধারায় সূর্যের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার আর্জিও জানিয়েছেন। খবর এনডিটিভি।

মধ্যপ্রদেশ রাজ্যে গত কিছুদিন ধরেই তাপমাত্রার পারদ কিছুতেই চল্লিশের নিচে নামছিলো না। যার ফলে সাধারণ মানুষের এখন ঘরবন্দি অবস্থা। অসহ্য গরমের দাপটে ঘরের বাইরে বের হতে পারছেন না প্রায় কেউই। কাজকর্ম থমকে যাওয়ার অবস্থা হয়েছে। ফলে এই অসহ্য গরমের যাবতীয় দায়ভার যে সূর্যের, তা এককথায় মেনে নিয়েছেন প্রত্যেকেই। আর সেই দায়ভার যাতে সূর্য কোনোভাবেই এড়াতে না পারে সেই কারণেই সোজা থানায় হাজির হয়ে সূর্যের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন শিবপাল সিং।

এদিকে, অদ্ভুত এই অভিযোগ পেয়ে তো রীতিমতো চোখ কপালে ওঠার উপক্রম শাজাপুর থানার পুলিশ কর্মকর্তাদের। সচরাচর এ ধরনের অভিযোগ কোথাও কখনো বাস্তবে হয়েছে বলে শোনেননি তারা। ফলে শিবপাল সিংয়ের এমন অভিযোগ পেয়ে তো মহা ঝামেলায় পড়েছেন।’

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

প্রচণ্ড গরমে অতিষ্ঠ হয়ে সূর্যের বিরুদ্ধে মামলা!

আপডেট সময় ০৬:২১:০৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৩

প্রচণ্ড গরম, রক্ষা পেতে সূর্যের বিরুদ্ধেই মানসিক ও শারীরিক নির্যাতনের মামলা করে বসলেন চিত্র-বিচিত্রের দেশ ভারতের মধ্যপ্রদেশ রাজ্যের এক বাসিন্দা। শিবপাল সিং নামের এক ব্যক্তি এই আজব মামলা করেছেন রাজ্যের শাজাপুর থানায়। তিনি ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৯৭৩ সালের ১৫৪ ধারায় সূর্যের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার আর্জিও জানিয়েছেন। খবর এনডিটিভি।

মধ্যপ্রদেশ রাজ্যে গত কিছুদিন ধরেই তাপমাত্রার পারদ কিছুতেই চল্লিশের নিচে নামছিলো না। যার ফলে সাধারণ মানুষের এখন ঘরবন্দি অবস্থা। অসহ্য গরমের দাপটে ঘরের বাইরে বের হতে পারছেন না প্রায় কেউই। কাজকর্ম থমকে যাওয়ার অবস্থা হয়েছে। ফলে এই অসহ্য গরমের যাবতীয় দায়ভার যে সূর্যের, তা এককথায় মেনে নিয়েছেন প্রত্যেকেই। আর সেই দায়ভার যাতে সূর্য কোনোভাবেই এড়াতে না পারে সেই কারণেই সোজা থানায় হাজির হয়ে সূর্যের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন শিবপাল সিং।

এদিকে, অদ্ভুত এই অভিযোগ পেয়ে তো রীতিমতো চোখ কপালে ওঠার উপক্রম শাজাপুর থানার পুলিশ কর্মকর্তাদের। সচরাচর এ ধরনের অভিযোগ কোথাও কখনো বাস্তবে হয়েছে বলে শোনেননি তারা। ফলে শিবপাল সিংয়ের এমন অভিযোগ পেয়ে তো মহা ঝামেলায় পড়েছেন।’