• শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ০৮:০৯ পূর্বাহ্ন
  • Bengali Bengali English English
বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈনিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ ।

প্রধানমন্ত্রীর কাছে একটি ঘর চায় দৃষ্টি প্রতিবন্ধী আব্দুল কাসেম দম্পতির

news / ৪৮ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় শনিবার, ১০ জুলাই, ২০২১

সুনামগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জের বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার পলাশ ইউনিয়ন,গ্রামঃ রনবিদ্যা, ডাকঘরঃ মেরুয়াখলা-৩০০০ এর দৃষ্টি প্রতিবন্ধী আব্দুল কাসেম দম্পতি অনেক বছর যাবত এই ভাংগা ঘরে বসবাসরত আছে।

স্থানীয় রোডের পাশে থাকা হাস্ পরিত্যক্ত জমিতে ছোট্ট একটি ঝুপড়ি ঘর তুলে কোনোমতে মানবেতর জীবনযাপন করছেন অসহায় হতদরিদ্র বৃদ্ধ ও দৃষ্টি প্রতিবন্ধী দম্পতি আব্দুল কাসেম ও রওশন আরা।

বৃদ্ধ এই দম্পতিদের দুই ছেলে ও তিন মেয়ে রয়েছে। মেয়েদের বিয়ে হয়ে যাওয়ায় তেমন একটা খোঁজখবর রাখছেন না কেউই। তবে দুই পুত্র সন্তান থাকলেও তারাও এখন ছোট এবং নাবালেক হওয়ায় উপার্জনের কেউ নেই।

বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে কোন ধরনের কাজ না থাকায় খেয়ে না খেয়ে কোনমতে কষ্ট করে জীবন জাপন করে আসছে এই দৃষ্টি প্রতিবন্ধী আব্দুল কাসেম দম্পতি ও তাদের পরিবারের সদস্যরা।
ঘর ভাংগা অবস্থায় খুব কষ্টে জীবন যাপন করছে এই দম্পতি। বৃষ্টি হলেই শুরু হয় ঘরের ভিতরে পানি প্রবেশ। ঘরের চালায় যে টিন দিয়ে ছাউনি দেয়া হয়েছে তা কয়েক বছর আগে চুর্ণ বিচুর্ণ হয়ে যাওয়ায় বৃষ্টির পানি তাদের ঘরের সকল বিছানা পত্র ভিজে যায়। একবেলা খাবার জোগার করতে হিমসিম খেয়ে জীবন যাপন অন্যদিকে নেই কোন মাথা গুজার জায়গা।

দৃষ্টি প্রতিবন্ধী আব্দুল কাসেম জানান,আমাকে একটা প্রতিবন্ধী কার্ড করে দেওয়া হয়েছে। একাধিকবার স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের কাছে একটা ঘরের জন্য গিয়েছি। কিন্তু সব সময় উনারা আমাকে সাতপাঁচ বুঝিয়ে বিদায় করে দিত। স্থানীয়দের সামান্য কিছু সহযোগিতায় মানবেতর জীবনযাপন করছি আমরা।

অশ্রুশিক্ত চোখে দৃষ্টি প্রতিবন্ধী দম্পতি জানান, সরকারি আশ্রয়ণ প্রকল্পের একটি ঘর পেলেই কিছুটা হলেও ভালো থাকবেন তারা। তাই স্থানীয় প্রশাসকসহ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিকট একটি সরকারি ঘরের জন্য আকুল আবেদন জানান এই দুই দম্পতি।

এবিষয়ে বিশ্বম্ভরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সাদিউর রহীম জাদিদ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন বিষয়টি আমি দেখব


এই বিভাগের আরো সংবাদ