ঢাকা ০৮:৪৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo কুমিল্লা- সিলেট মহাসড়ক অবরুদ্ধ করে রেখেছে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা Logo ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা’র সহধর্মীনি এডভোকেট সিগমা হুদার ইন্তেকাল Logo আমতলীতে ২য় শ্রেণির মাদ্রাসা ছাত্রী ধর্ষণ, ধর্ষক আটক Logo বাঘাইছড়িতে ছাত্রলীগের প্রতিবাদ মিছিল Logo সরাইলে কোটাবিরোধী আন্দোলনকারীদের সাথে ছাত্রলীগের সংঘর্ষ Logo ভাঙ্গায় দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-৩ আহত ৪০ Logo রূপসায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন Logo শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে মুরাদনগরে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ Logo সদরপুরে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের সাথে পুলিশের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া Logo যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাসিম এর মুত‍্যু বার্ষিকী পালিত

ভণ্ড কবিরাজদের অপচিকিৎসার সংবাদ করায়

বদলগাছীতে সাংবাদিক কে জবাই করার হুমকি

মোঃ রায়হান, নওগাঁ

নওগাঁ জেলার বদলগাছী উপজেলায় দিন দিন অপচিকিৎসা ও ভণ্ড কবিরাজদের প্রতারণা বেড়ে চলেছে। ভন্ড কবিরাজদের প্রতারণার নিউজ প্রকাশ হলে সাংবাদিক মজাহিদকে জবাই করার হুমকি। জানাগেছে ঝাড় ফুঁকের পাশাপাশি,যৌন-উত্তেজক সিরাপ তুলে দিচ্ছে রোগীর হাতে। আবার কেউ গোণা পড়ার নামে মিথ্যা অভিনয় ও কৌশলে সাধারণ মানুষদের কাটছে পকেট। আবার কেউ কেউ এদের থেকেও অনেক উপরে। বিশেষজ্ঞ ডাক্তার যে সব রোগীর চিকিৎসা করতে ব্যর্থ সেসব রোগীর পরিবারের মানুষদের বিভিন্ন টোটকা জাদু দেখিয়ে রোগী ভালো করার জন্য বেহুলার গান দিয়ে হাতিয়ে নিচ্ছে এক নাইট ৫০ হাজার থেকে ৮০ হাজার টাকা। সেই সাথে মুসলমানদের ঈমান নষ্ট করছে এবং মুসলমানদের পূজা করতে বাধ্য করছেন বদলগাছী উপজেলার বিলাসবাড়ী ইউনিয়নের দেওকুড়ি গ্রামের মোঃ আঃ রহমানের ছেলে মোঃ মান্নান কবিরাজ সহ
উপজেলার মিঠাপুর ইউনিয়নের বিক্ষাত কবিরাজ সামছুল, হাকিমপুর গ্রামের বসবাস কারী জিহাদ, মথুরাপুর ইউনিয়নের জগৎনগর গ্রামের খোকন হোসেন,কোলা ইউনিয়নের পুকুরিয়া গ্রামের সাহেরা বেওয়া, বিলাসবাড়ী ইউনিয়নের হলুদবিহার গ্রামের কাওছার কবিরাজ। নিজ উপজেলা সহ পার্শ্ববর্তী উপজেলায় প্রতিনিয়ত কোনও না কোন স্থানে অসুখ ভাল করার নামে
মুসলমানের বাড়ীতে বেহুলার গান পরিচালনা করেন ঐ সব ভন্ড কবিরাজ।

কবিরাজদের ভাষ্যে জানা যায়, তাদের করো কাছে সন্যাস, কারো কাছে মাদার, কারো কাছে জ্বিন পরী, কারো কাছে মনস্যা দেবী ও পদ্মা দেবী, আছে।তারা ধ্যানে বসে গোনাপড়া করে নাকি বলে দিতে পারেন রোগের ধরন। সেই অনুপাতে তার চিকিৎসা দিয়ে থাকে। যে রুগি গুলোকে ডাক্তার চিকিৎসা করে ভালো করতে পারেন না সে রুগি গুলোকে তারা ভালো করে তুলতে পারে। সব ধরনের রোগ যেমন ক্যানসার, প্যারালাইসিস, কিডনি নষ্ট, পাগল, প্রতিবন্ধী ও বন্ধ্যানারী সহ সকল রোগের চিকিৎসা করে থাকে। তারা নাকি চিকিৎসাবিদ্যায় পারদর্শী হয়েই সেবা দিচ্ছে। জটিল রোগের চিকিৎসার নামে প্রতারণা চিকিৎসাবিদ্যা না থাকলেও সমাধান দিচ্ছেন জটিল সব রোগের।

প্রতারিত আর সর্বশান্ত হচ্ছেন হাজারো মানুষ। বর্তমানে বাংলাদেশ সরকার মানুষের ১শত ভাগ স্বাস্থ্য সেবা দেওয়ার জন্য চিকিৎসকরা দিনরাত্রী নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। কিন্ত এই সব ভন্ড প্রতারক কবিরাজরা গ্রামের সাধারন মানুষদের ভুল বুঝিয়ে চিকিৎসার নামে প্রতারনা করছে।

সচেতন মহল দাবী ঐ সব ভন্ড কবিরাজদের হাত থেকে সাধারণ মানুষদেরকে রক্ষা করতে দ্রুত তাদের বিরুদ্ধে আইগত ব্যবস্থা গ্রহন করা প্রয়োজন। বদলগাছী মডেল প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মজাহিদ নিউজ প্রকাশ করলে মান্নান কবিরাজ মোবাইল ফোনে জবাই করার হুমকি বার্তা প্রদান করেন বলে কল রেকর্ডে প্রমান রয়েছে জানা গেছে।

আপলোডকারীর তথ্য

কুমিল্লা- সিলেট মহাসড়ক অবরুদ্ধ করে রেখেছে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা

ভণ্ড কবিরাজদের অপচিকিৎসার সংবাদ করায়

বদলগাছীতে সাংবাদিক কে জবাই করার হুমকি

আপডেট সময় ০৯:৫৯:১৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৯ জুন ২০২৪

মোঃ রায়হান, নওগাঁ

নওগাঁ জেলার বদলগাছী উপজেলায় দিন দিন অপচিকিৎসা ও ভণ্ড কবিরাজদের প্রতারণা বেড়ে চলেছে। ভন্ড কবিরাজদের প্রতারণার নিউজ প্রকাশ হলে সাংবাদিক মজাহিদকে জবাই করার হুমকি। জানাগেছে ঝাড় ফুঁকের পাশাপাশি,যৌন-উত্তেজক সিরাপ তুলে দিচ্ছে রোগীর হাতে। আবার কেউ গোণা পড়ার নামে মিথ্যা অভিনয় ও কৌশলে সাধারণ মানুষদের কাটছে পকেট। আবার কেউ কেউ এদের থেকেও অনেক উপরে। বিশেষজ্ঞ ডাক্তার যে সব রোগীর চিকিৎসা করতে ব্যর্থ সেসব রোগীর পরিবারের মানুষদের বিভিন্ন টোটকা জাদু দেখিয়ে রোগী ভালো করার জন্য বেহুলার গান দিয়ে হাতিয়ে নিচ্ছে এক নাইট ৫০ হাজার থেকে ৮০ হাজার টাকা। সেই সাথে মুসলমানদের ঈমান নষ্ট করছে এবং মুসলমানদের পূজা করতে বাধ্য করছেন বদলগাছী উপজেলার বিলাসবাড়ী ইউনিয়নের দেওকুড়ি গ্রামের মোঃ আঃ রহমানের ছেলে মোঃ মান্নান কবিরাজ সহ
উপজেলার মিঠাপুর ইউনিয়নের বিক্ষাত কবিরাজ সামছুল, হাকিমপুর গ্রামের বসবাস কারী জিহাদ, মথুরাপুর ইউনিয়নের জগৎনগর গ্রামের খোকন হোসেন,কোলা ইউনিয়নের পুকুরিয়া গ্রামের সাহেরা বেওয়া, বিলাসবাড়ী ইউনিয়নের হলুদবিহার গ্রামের কাওছার কবিরাজ। নিজ উপজেলা সহ পার্শ্ববর্তী উপজেলায় প্রতিনিয়ত কোনও না কোন স্থানে অসুখ ভাল করার নামে
মুসলমানের বাড়ীতে বেহুলার গান পরিচালনা করেন ঐ সব ভন্ড কবিরাজ।

কবিরাজদের ভাষ্যে জানা যায়, তাদের করো কাছে সন্যাস, কারো কাছে মাদার, কারো কাছে জ্বিন পরী, কারো কাছে মনস্যা দেবী ও পদ্মা দেবী, আছে।তারা ধ্যানে বসে গোনাপড়া করে নাকি বলে দিতে পারেন রোগের ধরন। সেই অনুপাতে তার চিকিৎসা দিয়ে থাকে। যে রুগি গুলোকে ডাক্তার চিকিৎসা করে ভালো করতে পারেন না সে রুগি গুলোকে তারা ভালো করে তুলতে পারে। সব ধরনের রোগ যেমন ক্যানসার, প্যারালাইসিস, কিডনি নষ্ট, পাগল, প্রতিবন্ধী ও বন্ধ্যানারী সহ সকল রোগের চিকিৎসা করে থাকে। তারা নাকি চিকিৎসাবিদ্যায় পারদর্শী হয়েই সেবা দিচ্ছে। জটিল রোগের চিকিৎসার নামে প্রতারণা চিকিৎসাবিদ্যা না থাকলেও সমাধান দিচ্ছেন জটিল সব রোগের।

প্রতারিত আর সর্বশান্ত হচ্ছেন হাজারো মানুষ। বর্তমানে বাংলাদেশ সরকার মানুষের ১শত ভাগ স্বাস্থ্য সেবা দেওয়ার জন্য চিকিৎসকরা দিনরাত্রী নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। কিন্ত এই সব ভন্ড প্রতারক কবিরাজরা গ্রামের সাধারন মানুষদের ভুল বুঝিয়ে চিকিৎসার নামে প্রতারনা করছে।

সচেতন মহল দাবী ঐ সব ভন্ড কবিরাজদের হাত থেকে সাধারণ মানুষদেরকে রক্ষা করতে দ্রুত তাদের বিরুদ্ধে আইগত ব্যবস্থা গ্রহন করা প্রয়োজন। বদলগাছী মডেল প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মজাহিদ নিউজ প্রকাশ করলে মান্নান কবিরাজ মোবাইল ফোনে জবাই করার হুমকি বার্তা প্রদান করেন বলে কল রেকর্ডে প্রমান রয়েছে জানা গেছে।