ঢাকা ০৮:৫০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo কুমিল্লা- সিলেট মহাসড়ক অবরুদ্ধ করে রেখেছে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা Logo ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা’র সহধর্মীনি এডভোকেট সিগমা হুদার ইন্তেকাল Logo আমতলীতে ২য় শ্রেণির মাদ্রাসা ছাত্রী ধর্ষণ, ধর্ষক আটক Logo বাঘাইছড়িতে ছাত্রলীগের প্রতিবাদ মিছিল Logo সরাইলে কোটাবিরোধী আন্দোলনকারীদের সাথে ছাত্রলীগের সংঘর্ষ Logo ভাঙ্গায় দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-৩ আহত ৪০ Logo রূপসায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন Logo শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে মুরাদনগরে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ Logo সদরপুরে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের সাথে পুলিশের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া Logo যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাসিম এর মুত‍্যু বার্ষিকী পালিত

বরুড়ায় প্রতীক নয়, লড়াই হবে ব্যক্তি ইমেজে

মোঃ মহিবুল্লাহ্ ভূঁইয়া বাবুল, স্টাফ রিপোর্টার : বরুড়া উপজেলা, আসন্ন ৮নং শাকপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৯ ডিসেম্বর।
এ নির্বাচনকে সামনে রেখে চেয়ারম্যান
পদপ্রার্থী হয়েছেন তিনজন। মনোনয়ন যাচাই-বাছাইয়ের পর ইউপি নির্বাচনকে
সামনে রেখে সরব হয়ে উঠেছেন প্রার্থীরা। প্রচার প্রচারণায় পার করছেন ব‍্যস্ত সময়। তাদের মধ‍্যে অন‍্যতম প্রার্থী
জনগণের মনোনীত আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি। স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর মোড়কে কর্মী-সর্মথকদের নিয়ে দিনরাত
নির্বাচনী মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন তিনি। নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হলে তিনিই জয়লাভ করবেন এমন আশাবাদ ব‍্যক্ত
করেন তিনি ও তার কর্মী-সমর্থকরা। নির্বাচনী এলাকায় অনুসন্ধানে দেখা যায়, অধিকাংশ ভোটারের মতো, এখানে চেয়ারম্যান পদে ৩ প্রার্থীর মধ্যে রিজার্ভ ভোটে এগিয়ে রয়েছেন জনগণের মনোনীত এই জনপদের জনতার নেতা হিসেবে আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি। গরিব-দুঃখী ও অসহায় মানুষের পাশে থাকায় ইউপি এলাকার প্রাণের নেতা হিসেবেই তার অবস্থান বলে অনেকেই
মত প্রকাশ করেন। তার জনসমর্থন অনেকটায় রিজার্ভ ফান্ডের মতো। স্থানীয় লোকজন মনে করছেন, প্রতীক নয় ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীর ব‍্যক্তি ইমেজ ইস‍্যুতেই জয়-পরাজয় নির্ধারণ হবে।এদিকে প্রতীক বরাদ্দ না পেলেও প্রার্থীদের নির্ঘুম প্রচারণায় সরগরম হয়ে উঠছে নির্বাচনী এলাকা। উন্নয়নের নানা প্রতিশ্রুতি নিয়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন প্রার্থীরা। এ নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী হয়েছেন ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন।
চেয়ারম্যান থাকাকালীন তিনি অনেক উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন এবং সব সময় মানুষের সেবায় নিয়োজিত রয়েছেন তাই ভোটাররা তাকেই রায় দিবেন এমন দাবিতে বিজয়ের শেষ হাসি তিনি হাসবেন এমন প্রত‍্যাশা করলেও ভোটাররা বলছেন ভিন্ন কথা।
এই নির্বাচনে দলীয় প্রতীক নয়, প্রার্থীদের ব্যক্তি ইমেজের ওপরেই পড়বে ভোট। নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফশিলের পর থেকেই ধর্ম-বর্ণ-নির্বিশেষে আবাল-বৃদ্ধ-বনিতাসহ সকল শ্রেণি-পেশার মানুষের আস্থাভাজন নেতা আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অংশ নেয়ায় অনেকটাই পাল্টেছে ইউপি নির্বাচনের সমীকরণ। প্রতিদিন সকাল থেকে রাত অবধি ইউনিয়নের প্রত্যেকটি অলি-গলি রীতিমতো চষে বেড়াচ্ছেন তিনি ও তার কর্মী সমর্থকরা। এমনকি বাড়ি বাড়ি গিয়েও সাধারণ মানুষের সাথে করছেন গণসংযোগ, মতবিনিময়, দোয়া, সমর্থন ও মূল্যবান ভোট চাইছেন ভোটারদের কাছে।
সোমবার (১২ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডে গণসংযোগকালে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি বলেন, আমি কারো সমালোচনা করবো না। জনগণের পক্ষ থেকে প্রশাসনের কাছে শুধু একটাই দাবি আমার, তা হলো সুষ্ঠু নির্বাচন। কে ভালো, কে মন্দ আর কে বেশি জনপ্রিয় তার রায় ২৯ ডিসেম্বরে মানুষ ভোটের মাধ্যমেই দেবে।

আপলোডকারীর তথ্য

কুমিল্লা- সিলেট মহাসড়ক অবরুদ্ধ করে রেখেছে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা

বরুড়ায় প্রতীক নয়, লড়াই হবে ব্যক্তি ইমেজে

আপডেট সময় ১০:১১:২২ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০২২

মোঃ মহিবুল্লাহ্ ভূঁইয়া বাবুল, স্টাফ রিপোর্টার : বরুড়া উপজেলা, আসন্ন ৮নং শাকপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৯ ডিসেম্বর।
এ নির্বাচনকে সামনে রেখে চেয়ারম্যান
পদপ্রার্থী হয়েছেন তিনজন। মনোনয়ন যাচাই-বাছাইয়ের পর ইউপি নির্বাচনকে
সামনে রেখে সরব হয়ে উঠেছেন প্রার্থীরা। প্রচার প্রচারণায় পার করছেন ব‍্যস্ত সময়। তাদের মধ‍্যে অন‍্যতম প্রার্থী
জনগণের মনোনীত আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি। স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর মোড়কে কর্মী-সর্মথকদের নিয়ে দিনরাত
নির্বাচনী মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন তিনি। নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হলে তিনিই জয়লাভ করবেন এমন আশাবাদ ব‍্যক্ত
করেন তিনি ও তার কর্মী-সমর্থকরা। নির্বাচনী এলাকায় অনুসন্ধানে দেখা যায়, অধিকাংশ ভোটারের মতো, এখানে চেয়ারম্যান পদে ৩ প্রার্থীর মধ্যে রিজার্ভ ভোটে এগিয়ে রয়েছেন জনগণের মনোনীত এই জনপদের জনতার নেতা হিসেবে আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি। গরিব-দুঃখী ও অসহায় মানুষের পাশে থাকায় ইউপি এলাকার প্রাণের নেতা হিসেবেই তার অবস্থান বলে অনেকেই
মত প্রকাশ করেন। তার জনসমর্থন অনেকটায় রিজার্ভ ফান্ডের মতো। স্থানীয় লোকজন মনে করছেন, প্রতীক নয় ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীর ব‍্যক্তি ইমেজ ইস‍্যুতেই জয়-পরাজয় নির্ধারণ হবে।এদিকে প্রতীক বরাদ্দ না পেলেও প্রার্থীদের নির্ঘুম প্রচারণায় সরগরম হয়ে উঠছে নির্বাচনী এলাকা। উন্নয়নের নানা প্রতিশ্রুতি নিয়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন প্রার্থীরা। এ নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী হয়েছেন ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন।
চেয়ারম্যান থাকাকালীন তিনি অনেক উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন এবং সব সময় মানুষের সেবায় নিয়োজিত রয়েছেন তাই ভোটাররা তাকেই রায় দিবেন এমন দাবিতে বিজয়ের শেষ হাসি তিনি হাসবেন এমন প্রত‍্যাশা করলেও ভোটাররা বলছেন ভিন্ন কথা।
এই নির্বাচনে দলীয় প্রতীক নয়, প্রার্থীদের ব্যক্তি ইমেজের ওপরেই পড়বে ভোট। নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফশিলের পর থেকেই ধর্ম-বর্ণ-নির্বিশেষে আবাল-বৃদ্ধ-বনিতাসহ সকল শ্রেণি-পেশার মানুষের আস্থাভাজন নেতা আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অংশ নেয়ায় অনেকটাই পাল্টেছে ইউপি নির্বাচনের সমীকরণ। প্রতিদিন সকাল থেকে রাত অবধি ইউনিয়নের প্রত্যেকটি অলি-গলি রীতিমতো চষে বেড়াচ্ছেন তিনি ও তার কর্মী সমর্থকরা। এমনকি বাড়ি বাড়ি গিয়েও সাধারণ মানুষের সাথে করছেন গণসংযোগ, মতবিনিময়, দোয়া, সমর্থন ও মূল্যবান ভোট চাইছেন ভোটারদের কাছে।
সোমবার (১২ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডে গণসংযোগকালে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আলহাজ্ব আব্দুল খালেক মুন্সি বলেন, আমি কারো সমালোচনা করবো না। জনগণের পক্ষ থেকে প্রশাসনের কাছে শুধু একটাই দাবি আমার, তা হলো সুষ্ঠু নির্বাচন। কে ভালো, কে মন্দ আর কে বেশি জনপ্রিয় তার রায় ২৯ ডিসেম্বরে মানুষ ভোটের মাধ্যমেই দেবে।