• শুক্রবার, ৩০ জুলাই ২০২১, ০৭:০১ পূর্বাহ্ন
  • Arabic Arabic Bengali Bengali English English
শিরোনাম
হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আটক করেছে র‌্যাব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে চলমান ছুটি বাড়লো ৩১ আগষ্ট পর্যন্ত হেলেনা জাহাঙ্গীরের বাসা থেকে বিপুল পরিমাণ মাদক উদ্ধার নবীগঞ্জে বিধিনিষেধ অমান্য করায় জরিমানা পবায় প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত অসহায় পরিবারের মাঝে ঢেউটিন বিতরণ সরাইলে নমুনা দেয়ার আগেই ঢলে পড়লেন মৃত্যুর কোলে শনিবার থেকে নিবন্ধনকারীদের করোনার টিকা দেওয়া হবে রাজশাহী টিচার্স ট্রেনিং কলেজে পবায় কোভিড-এ ক্ষতিগ্রস্ত পল্লী উদ্যোক্তাদের মাঝে প্রণোদনা ঋণ বিতরণ উল্লাপাড়ায় স্বেচ্ছায় রাস্তা সংস্কার কঠোর লকডাউনে বাড়েনি সবজির দাম, সাধারণ মানুষর স্বস্তি ফিরলেও দুঃশ্চিন্তায় চাষীরা
বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈদিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একদন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ

ভাঙ্গায় মানিকদাহ ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মানব বন্ধন

news / ৩৪ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় রবিবার, ২৭ জুন, ২০২১

ফরিদপুর (ভাঙ্গা) প্রতিনিধি: ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার মানিকদাহ ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের নানাবিধ অনিয়মের প্রতিবাদ করায় তারা মেম্বারকে নির্যাতন করায় এলাকার সাধারণ জনগণ গত ২৫ জুন বিকেল ৫ টায় স্থানীয় জানপুর মোড়ে একটি জটিকা মানববন্ধন করেন।

নির্যাতিত তারা মেম্বার গতকাল সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, আমাদের ইউনিয়নের ৪০ দিনের কর্মসূচির কাজ চলছে। যা দৈনিক নগদ মজুরির বিনিময় জনপ্রতি ২০০ টাকা বেতন পাবে শ্রমিকরা। এখানে নারী পরুষ উভয়ে কাজ করে। সেখানে ১৫৩ জন শ্রমিক কাজ করার কথা থাকলেও বাস্তবে কাজ করছে মাত্র ৩০/৩২ জন শ্রমিক। অথচ চেয়ারম্যান ও তার লোকজন মাষ্টার রোলে ১৩৫ জন শ্রমিক দেখিয়ে পুরো শ্রমিকের টাকা আত্মসাত করছে।এর প্রতিবাদ করায় গত ১০ জুন পরিষদের মধ্যেই চেয়ারম্যান ও তার লোকজন আমাকে লাথি, চড়, কিল, ঘুষি মেরে ফুলা জখম করে। পরে বাইরে টেনে এনে চেয়ারম্যান তার আমার বাম পাঁজরে জোরে আঘাত করলে আমার দুটি হাড় ফ্রাকচার হয়ে যায়। ওই দিনই আমাকে অজ্ঞান অবস্থায় ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে স্থানীয় লোকজন। ফরিদপুর বঙ্গ বন্ধু মেডিকেল হাসপাতালে খোঁজ নিয়ে ভর্তির সত্যতা পাওয়া যায়। সার্জারির ওয়ার্ডের ভর্তি রেজি নং ৪৮৫৩২/১২৯ বেড নং২১। এ বিষয়ে সদরপুর উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি আসলাম ফকির জানান, চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ ও মাইরের ঘটনা দুটোই সত্য।

পরিষদের ৩ নং ওয়ার্ডর মেম্বর বলেন, মানিকদাহ ইউপি থেকে কবর স্হান পর্যন্ত একটি প্রকল্পের কাজও বিভিন্ন অনিয়মের মাধ্যমে জনগনের রাস্তা উন্নয়নের অর্থ গিলে খাচ্ছে।

স্থানীয় বাবুল হোসেন মোল্যা পিতাঃ আঃ রাজ্জাক মোল্যা বলেন, সরকার জনগনকে যে টিউবওয়েল বরাদ্দ দিয়েছে তা চেয়ারম্যান সঠিক ভাবে বন্টন না করে অর্থের বিনিময়ে বন্টন করেছে।

বিষয়ে কথা হয়, ভাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার আজিম উদ্দিন সাহেবের সাথে। তিনি বললেন, সব ঘটনা জানলাম, এই বিষয়ে নির্যাতিত মেম্বার সকল অনিয়ম এবং তার বিষয় লিখিত অভিযোগ করলে নিশ্চই আমি ব্যাবস্থা নিবো।

ঘটনার বিষয় মানিকদাহ ইউপির চেয়ারম্যান মোঃ আবু
সাঈদ মিয়া বলেন , তারা ভুঁইয়ার মারামারি অভিন্ন একটি ঘটনা। আমি শুনেছি, তবে পরিষদের সংশ্লিষ্ট ঘটনা না। আমি বা আমার কোন লোকজন এ ঘটনায় জড়িত নয়। একটি মহল বিভিন্ন সময় আমাকে রাজনৈতিক ভাবে হেয় করার চেষ্টা করে যাচ্ছে। আমার বিরুদ্ধে আনা সমস্ত অভিযোগ ভিওিহীন ও বানোয়াট।


এই বিভাগের আরো সংবাদ