ঢাকা ০১:৫৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ভূঞাপুরে দুর্ধর্ষ চুরির

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলার নিকরাইল ইউনিয়নের মাটিকাটা বাজারে দুটি দোকানে দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটেছে।

শনিবার (২০ মে) ভোর রাতে তিনটার দিকে উপজেলা মাটিকাটা-নিকরাইল আঞ্চলিক সড়কের মাটিকাটা বাজারে দুটি দোকানের তালা ভেঙে চোরের দল প্রায় ৮ থেকে ৯ লাখ টাকার বিভিন্ন মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় এমনই অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী দোকান মালিকেরা।

ভুক্তভোগী দোকান মালিকেরা হলেন, মাটিকাটা বাজারের বিসমিল্লাহ্ বস্ত্রালয়ের স্বত্বাধিকারীরা কামরুজ্জামান হিরা ও পাশের মনিহারি দোকানদার এরশাদ।

সিসি ফুটেজে দেখা যায়, শনিবার ভোর রাতে দোকানের সার্টারের তালা ভেঙ্গে ভেতরে ঢুকে চোরের দল। এরপর দুটি দোকান হতে চাল চিনি ও কাপড় সহ বিভিন্ন মালামাল লুট করে একটি নীল রঙের পিকআপযোগে তুলে নিয়ে যায়। তবে এ ঘটনায় সিসি ক্যামেরা ফুটেজ থেকে দোকান মালিকেরা কাউকে শনাক্ত করতে পারে নি।

এ ঘটনায় বিসমিল্লাহ্ বস্ত্রালয়ের স্বত্বাধিকারীরা কামরুজ্জামান জানান, শনিবার ভোর রাতে আমার দোকানে বড় ধরনের ডাকাতি হয়। আমার দোকানে বিভিন্ন দেশি-বিদেশি নামি-দামি কাপড় ছিলো। চোরেরা তাক খালি করে সব কাপড় চুরি করে নিয়ে গেছে । আমার দোকান থেকে আনুমানিক ৬ থেকে সাড়ে ৬ লক্ষ টাকার মালামাল চুরি হয়েছে।
ভুক্তভোগী দোকান মালিক আরও জানান, চুরির ঘটনায় সিসি ক্যামেরার ফুটেজ নিয়ে আইনের শরণাপন্ন হবেন। এসময় তিনি, চোরকে দ্রুত শনাক্ত করে তাদেরকে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়ে প্রশাসনের কাছে হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

মনিহারি দোকানদার এরশাদ বলেন, গত ভোর রাতে আমার মনিহারি দোকানের গোডাউন থেকে চাল, চিনি ও বিভিন্ন মালামাল সহ প্রায় আড়াই থেকে তিন লাখ টাকার মালামাল চুরি হয়েছে। এ চুরির ঘটনায় তিনি পুলিশ প্রশাসনের কাছে সহায়তা কামনা করেন

এ রিপোর্ট করা কালীন সময়ে ভূঞাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুহাম্মাদ ফরিদুল ইসলাম জানান, মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে অভিযোগের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

ভূঞাপুরে দুর্ধর্ষ চুরির

আপডেট সময় ০১:৩০:৩১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ মে ২০২৩

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলার নিকরাইল ইউনিয়নের মাটিকাটা বাজারে দুটি দোকানে দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটেছে।

শনিবার (২০ মে) ভোর রাতে তিনটার দিকে উপজেলা মাটিকাটা-নিকরাইল আঞ্চলিক সড়কের মাটিকাটা বাজারে দুটি দোকানের তালা ভেঙে চোরের দল প্রায় ৮ থেকে ৯ লাখ টাকার বিভিন্ন মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় এমনই অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী দোকান মালিকেরা।

ভুক্তভোগী দোকান মালিকেরা হলেন, মাটিকাটা বাজারের বিসমিল্লাহ্ বস্ত্রালয়ের স্বত্বাধিকারীরা কামরুজ্জামান হিরা ও পাশের মনিহারি দোকানদার এরশাদ।

সিসি ফুটেজে দেখা যায়, শনিবার ভোর রাতে দোকানের সার্টারের তালা ভেঙ্গে ভেতরে ঢুকে চোরের দল। এরপর দুটি দোকান হতে চাল চিনি ও কাপড় সহ বিভিন্ন মালামাল লুট করে একটি নীল রঙের পিকআপযোগে তুলে নিয়ে যায়। তবে এ ঘটনায় সিসি ক্যামেরা ফুটেজ থেকে দোকান মালিকেরা কাউকে শনাক্ত করতে পারে নি।

এ ঘটনায় বিসমিল্লাহ্ বস্ত্রালয়ের স্বত্বাধিকারীরা কামরুজ্জামান জানান, শনিবার ভোর রাতে আমার দোকানে বড় ধরনের ডাকাতি হয়। আমার দোকানে বিভিন্ন দেশি-বিদেশি নামি-দামি কাপড় ছিলো। চোরেরা তাক খালি করে সব কাপড় চুরি করে নিয়ে গেছে । আমার দোকান থেকে আনুমানিক ৬ থেকে সাড়ে ৬ লক্ষ টাকার মালামাল চুরি হয়েছে।
ভুক্তভোগী দোকান মালিক আরও জানান, চুরির ঘটনায় সিসি ক্যামেরার ফুটেজ নিয়ে আইনের শরণাপন্ন হবেন। এসময় তিনি, চোরকে দ্রুত শনাক্ত করে তাদেরকে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়ে প্রশাসনের কাছে হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

মনিহারি দোকানদার এরশাদ বলেন, গত ভোর রাতে আমার মনিহারি দোকানের গোডাউন থেকে চাল, চিনি ও বিভিন্ন মালামাল সহ প্রায় আড়াই থেকে তিন লাখ টাকার মালামাল চুরি হয়েছে। এ চুরির ঘটনায় তিনি পুলিশ প্রশাসনের কাছে সহায়তা কামনা করেন

এ রিপোর্ট করা কালীন সময়ে ভূঞাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুহাম্মাদ ফরিদুল ইসলাম জানান, মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে অভিযোগের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।