ঢাকা ০৪:৫২ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুরাদনগরে পাওয়া গেলো ১৮ কেজি ওজনের মিষ্টি আলু

কুমিল্লার মুরাদনগরে প্রায় ১৮ কেজি ওজনের এক বিশাল আকৃতির মিষ্টি আলু পাওয়া গেছে। রবিবার উপজেলার বাঙ্গরা বাজার থানাধীন রামচন্দ্রপুর উত্তর ইউনিয়নে খানেপাড়া গ্রামের আব্দুল কাদির মেম্বার এর ছেলে কৃষক সবুজ মিয়ার পরিত্যক্ত বালুর স্তুপে লাগানো মিষ্টি আলুর গাছ থেকে পাওয়া গেছে বিশাল আকৃতির এই মিষ্টি আলুটি। আলুটি একনজর দেখার জন্য সবুজ মিয়ার বাড়ীতে ভীড় করেছে এলাকার উৎসুক জনতা।
এ ব্যপারে কৃষক সবুজ মিয়া বলেন, “আমি প্রায় তের মাস পূর্বে বাড়ী করার জন্য ক্রয়কৃত জায়গার বালুর স্তুপে কিছু মিস্টি আলুর লতা লাগিয়ে ছিলাম। গতকাল আলুর লতা তুলতে গিয়ে হঠাৎ করে চোখে পরে মাটির উপরে ভেসে থাকা আলুটি। পরে আলুটি মাটি থেকে তুলে ওজন করে দেখি এর ওজন প্রায় ১৮ কেজি। পাশাপাশি ৪/৫ কেজি ওজনের আরো কয়েকটি আলু পাওয়া গেছে। আলুটির একপাশ দিয়ে ইঁদুরে না খেলে আরো বড় হতো। আমি ভাবতেও পারিনি এত বড় মিস্টি আলু হতে পারে। এত বড় আলু পাওয়ার খবর শুনে একনজর দেখার জন্য এলাকার লোকজন বাড়িতে ভড়ি করতে থাকে।”
উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা পাভেল খান পাপ্পু বলেন, বিষয়টি শুনে আমার এক কর্মকর্তাকে সেখানে পাঠিয়েছি দেখার জন্য। তিনি আসলে সেটা সম্পর্কে সঠিকভাবে জানা যাবে। তবে আলু যেহেতু একটি রূপান্তরিত কন্দ সেহেতু অনেকগুলো আলু একত্রিত হয়ে এমনটি হতে পারে।

আপলোডকারীর তথ্য

মুরাদনগরে পাওয়া গেলো ১৮ কেজি ওজনের মিষ্টি আলু

আপডেট সময় ০৫:৩০:৩৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ৭ মে ২০২৩

কুমিল্লার মুরাদনগরে প্রায় ১৮ কেজি ওজনের এক বিশাল আকৃতির মিষ্টি আলু পাওয়া গেছে। রবিবার উপজেলার বাঙ্গরা বাজার থানাধীন রামচন্দ্রপুর উত্তর ইউনিয়নে খানেপাড়া গ্রামের আব্দুল কাদির মেম্বার এর ছেলে কৃষক সবুজ মিয়ার পরিত্যক্ত বালুর স্তুপে লাগানো মিষ্টি আলুর গাছ থেকে পাওয়া গেছে বিশাল আকৃতির এই মিষ্টি আলুটি। আলুটি একনজর দেখার জন্য সবুজ মিয়ার বাড়ীতে ভীড় করেছে এলাকার উৎসুক জনতা।
এ ব্যপারে কৃষক সবুজ মিয়া বলেন, “আমি প্রায় তের মাস পূর্বে বাড়ী করার জন্য ক্রয়কৃত জায়গার বালুর স্তুপে কিছু মিস্টি আলুর লতা লাগিয়ে ছিলাম। গতকাল আলুর লতা তুলতে গিয়ে হঠাৎ করে চোখে পরে মাটির উপরে ভেসে থাকা আলুটি। পরে আলুটি মাটি থেকে তুলে ওজন করে দেখি এর ওজন প্রায় ১৮ কেজি। পাশাপাশি ৪/৫ কেজি ওজনের আরো কয়েকটি আলু পাওয়া গেছে। আলুটির একপাশ দিয়ে ইঁদুরে না খেলে আরো বড় হতো। আমি ভাবতেও পারিনি এত বড় মিস্টি আলু হতে পারে। এত বড় আলু পাওয়ার খবর শুনে একনজর দেখার জন্য এলাকার লোকজন বাড়িতে ভড়ি করতে থাকে।”
উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা পাভেল খান পাপ্পু বলেন, বিষয়টি শুনে আমার এক কর্মকর্তাকে সেখানে পাঠিয়েছি দেখার জন্য। তিনি আসলে সেটা সম্পর্কে সঠিকভাবে জানা যাবে। তবে আলু যেহেতু একটি রূপান্তরিত কন্দ সেহেতু অনেকগুলো আলু একত্রিত হয়ে এমনটি হতে পারে।