ঢাকা ০৯:২১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৯ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

যশোরে বিষাক্ত মদ পানে তিনজনের মৃত্যু, আহত ৭

  • যশোর প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময় ০১:৫৩:৫৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩
  • ১২৬ বার পড়া হয়েছে

যশোরে বিষাক্ত মাদপান করে গত ৭২ ঘন্টায় তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। একই ঘটনায় আরো সাতজন অসুস্থ হয়ে যশোর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

যশোরে ডিসি বলছেন, বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। আর পুলিশ বলছে বিষয়টি তারা গভীরভাবে ক্ষতিয়ে দেখছে।

যশোর জেনারেল হাসপাতাল সূত্র জানায়, গত ২৫ ডিসেম্বর সদর উপজেলার আবাদ কচুয়া গ্রামে মকের আলীর মোল্লার ছেলে কাসেম মোল্লা (৫৫), একই গ্রামের হামিদের ছেলে নুর ইসলাম (৪৫) ও শাহাজানের ছেলে জাকির হোসেন (২৮) বিশাক্ত মদ পানে গুরুতর অসুস্থ হন। তারা যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার সময় মদ পানের কথা গোপন রাখেন।

চিকিৎসাধীন অবস্থায় পরদিন রাতে মারা যান কাসেম মোল্লা । এরপর ২৭ ডিসেম্বর চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান নুর ইসলাম ও জাকির হোসেন।

সূত্র বলছে, গত ২৫ ডিসেম্বর রাতে সদরের সীতারামপু গ্রমের বালুর কাছে মদ সেবন করেন অন্তত ২৪ জন। যারা সবাই কমবেশি অসুস্থ হয়ে পড়েছে। তার মধ্যে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে।

চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন একই গ্রামের রিপন, আনোয়ার, বাবলু, কালাম ও নজরুল।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার আহমেদ তারেক শামস বলেন, দুইজনের লাশ পরিবার নিয়ে গেছে। একটি লাশ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে রয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসলে বিস্তারিত জানা যাবে।

কোতয়ালী থানার ওসি তাজুল ইসলাম বলেন, পুলিশ বিষয়টি গভীরভাবে ক্ষতিয়ে দেখছে।

যশোর মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের ডিডি হুমায়ুন কবীর খন্দকার বলেন, এরকম ঘটনা আমার জানা নেই। আপনি বলছেন বিষয়টি ক্ষতিয়ে দেখা হবে।

যশোরে জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান বলেন, এটা খুবই দুঃখজনক ঘটনা। তদন্তটিম গঠন করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। জড়িতদের ছাড় দেয়া হবে না।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

যশোরে বিষাক্ত মদ পানে তিনজনের মৃত্যু, আহত ৭

আপডেট সময় ০১:৫৩:৫৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩

যশোরে বিষাক্ত মাদপান করে গত ৭২ ঘন্টায় তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। একই ঘটনায় আরো সাতজন অসুস্থ হয়ে যশোর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

যশোরে ডিসি বলছেন, বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। আর পুলিশ বলছে বিষয়টি তারা গভীরভাবে ক্ষতিয়ে দেখছে।

যশোর জেনারেল হাসপাতাল সূত্র জানায়, গত ২৫ ডিসেম্বর সদর উপজেলার আবাদ কচুয়া গ্রামে মকের আলীর মোল্লার ছেলে কাসেম মোল্লা (৫৫), একই গ্রামের হামিদের ছেলে নুর ইসলাম (৪৫) ও শাহাজানের ছেলে জাকির হোসেন (২৮) বিশাক্ত মদ পানে গুরুতর অসুস্থ হন। তারা যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার সময় মদ পানের কথা গোপন রাখেন।

চিকিৎসাধীন অবস্থায় পরদিন রাতে মারা যান কাসেম মোল্লা । এরপর ২৭ ডিসেম্বর চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান নুর ইসলাম ও জাকির হোসেন।

সূত্র বলছে, গত ২৫ ডিসেম্বর রাতে সদরের সীতারামপু গ্রমের বালুর কাছে মদ সেবন করেন অন্তত ২৪ জন। যারা সবাই কমবেশি অসুস্থ হয়ে পড়েছে। তার মধ্যে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে।

চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন একই গ্রামের রিপন, আনোয়ার, বাবলু, কালাম ও নজরুল।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার আহমেদ তারেক শামস বলেন, দুইজনের লাশ পরিবার নিয়ে গেছে। একটি লাশ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে রয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসলে বিস্তারিত জানা যাবে।

কোতয়ালী থানার ওসি তাজুল ইসলাম বলেন, পুলিশ বিষয়টি গভীরভাবে ক্ষতিয়ে দেখছে।

যশোর মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের ডিডি হুমায়ুন কবীর খন্দকার বলেন, এরকম ঘটনা আমার জানা নেই। আপনি বলছেন বিষয়টি ক্ষতিয়ে দেখা হবে।

যশোরে জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান বলেন, এটা খুবই দুঃখজনক ঘটনা। তদন্তটিম গঠন করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। জড়িতদের ছাড় দেয়া হবে না।