বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈনিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ ।

রাস্তার পাশে পড়েছিল ফুটফুটে নবজাতক

Muktir Lorai / ৮৯ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় রবিবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০২০

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলায় সখিপুরের চরভাগা ইউনিয়নের রাস্তার পাশ থেকে নবজাতককে উদ্ধার করেন এলাকাবাসী। পরে স্থানীয়রা ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে খবর দিলে তিনি পুলিশ পাঠিয়ে নবজাতককে উদ্ধার করে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করেছেন।

পরিচয়হীন এ নবজাতক কন্যাটিকে শনিবার (১৯ ডিসেম্বর) ভোর সাড়ে ৬টার দিকে স্থানীয় বঙ্গবন্ধু আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজের সামনে রাস্তার পাশ থেকে উদ্ধার করা হয়।
চরভাগা ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের সদস্য কাউসার বকাউল বলেন, শনিবার ভোর সাড়ে ৬টার দিকে বঙ্গবন্ধু স্কুলের পাশে লক্ষা ব্যাপারীর বাড়ির সামনের রাস্তায় নবজাতকটি পড়ে থাকতে দেখেন এলাকাবাসী।
এ সংবাদ চারদিকে ছড়িয়ে পড়লে শিশুটি দেখতে এলাকার মানুষজন ভিড় করেন। ঠান্ডা আবহাওয়ায় কাঁপতে থাকা শিশুটিকে গ্রামের আমান উল্লাহ সরদারের মেয়ে আমেনা কোলে তুলে নেন। পরে ভেদরগঞ্জ থানার রামভদ্রপুর ইউনিয়নের ২নং ওয়াডের বাসিন্দা মুজিবুর মাদবরের স্ত্রী আছিয়া শিশুটিকে লালন-পালনের জন্য আমেনার কাছ থেকে তার বাসায় নিয়ে যান।

ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর আল নাসীফের নির্দেশে ভেদরগঞ্জ থানা পুলিশ নবজাতক শিশুটিকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য শরীয়তপুর হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ব্যাপারে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের দায়িত্বরত মেডিকেল অফিসার ডা. ফিরোজ আহম্মেদ বলেন, নবজাতকটি সম্ভবত শনিবারই ভূমিষ্ঠ হয়েছে। বয়সে অপরিপক্ব। ঠান্ডাজনিত কারণে কিংবা বয়স কম থাকায় শ্বাসতন্ত্রের সমস্যা দেখা যাচ্ছে তার। দুপুর থেকে নবজাতক শিশুটিকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তার অবস্থা আশঙ্কামুক্ত নয়।
ভেদরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এবিএম রশিদুল বারী জানান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এবং এলাকাবাসী শিশুটির কথা জানান। তখন তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে নবজাতকটিকে উদ্ধার করে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতালে চিকিৎসা চলছে। উদ্ধার হওয়া শিশুটির পরিচয় পাওয়া যায়নি।
ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর আল নাসীফ বলেন, সংবাদ পেয়ে পুলিশ পাঠিয়ে নবজাতক শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ডাক্তার শিশুটির অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন। তাকে বাঁচানোর জন্য চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। নবজাতকটির অভিভাবক শনাক্ত করা যায়নি। ডাক্তার সম্পূর্ণ সুস্থ ঘোষণা করলে সরকারি বিধি ও আইন মোতাবেক পরবর্তীতে শিশুটিকে লালন-পালনের জন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


এই বিভাগের আরো সংবাদ
Translate »
Translate »