• শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:৪১ অপরাহ্ন
  • Bengali Bengali English English
শিরোনাম
সিএমপির পাঁচলাইশ মডেল থানার অভিযানে ০২টি স্টিলের টিপছোরা সহ ০১ জন গ্রেফতার ভান্ডারিয়ায় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার মান উন্নয়নে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হাজী তৈয়েবুর রহমান সড়কের বেহালদশা শ্রীবরদীতে নদীর পাড় থেকে গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার মুরাদনগরে জালিয়াতির অভিযোগে দুদকের মামলায় শিক্ষক গ্রেফতার গাংনীর কুমারীডাঙ্গা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি ইয়াবাসহ আটক গাংনীতে গলায় ফাঁস দিয়ে গৃহবধুর আত্মহত্যা করলা সাথে শত্রুতা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রলার ডুবিতে নিহত মামুনের পরিবার ফেরত পেল মেডিকেলে ভর্তির ১৮ লাখ টাকা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এমপি হচ্ছেন ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত
বিজ্ঞাপন
মুক্তিকামী জনতার দৈনিক 'মুক্তির লড়াই' পত্রিকার জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে একজন করে ব্যুরো চীফ, প্রতি জেলা ও উপজেলার একজন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আবেদন করুন। যোগাযোগের ঠিকানাঃ কামরুজ্জামান জনি- সম্পাদক, মুক্তির লড়াই। ইমেইলঃ jobmuktirlorai@gmail.com । ধন্যবাদ ।

রূপসায় মন্দিরে হামলার ঘটনায় আরও ৩জন গ্রেফতার

Muktir Lorai / ১৩২ বার ভিউ করা হয়েছে
বাংলাদেশ সময় শনিবার, ১৪ আগস্ট, ২০২১

নাহিদ জামান, খুলনা প্রতিনিধিঃ খুলনার রূপসায় মন্দিরে হামলার ঘটনায় আরও ৩জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

জেলার রূপসা থানাধীন শিয়ালী গ্রাম হতে তাদের আটক করা হয়।
আটককৃতরা হলেন, মোঃ রসুল শেখ (৩৫), পিতা-মোঃ ওমর আলী শেখ, মোঃ কামাল সিকদার লিয়ন সিকদার (৩১), পিতা-মৃত নুরু সিকদার মোঃ আরিফুল সিকদার কালু (৩০), পিতা-মৃত মহম সরদার কে গ্রেফতার করে।
তাদের সকলের বাড়ি রূপসা থানার চাঁদপুর প্রামে। গ্রেফতারকৃত আসামীদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা উক্ত ঘটনার সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ন তথ্য দিয়েছে বলে জানা গেছে। অন্যান্য পলাতক আসামীদের গ্রেফতারের জন্য আভিযান অব্যাহত রয়েছে। গ্রেফতাকৃত আসামীদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তার নিকট হস্তান্তরের আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।

উল্লেখ্য গত ০৭ আগস্ট বিকালে খুলনা জেলার রূপসা উপজেলার ঘাটভোগ ইউনিয়নের শিয়ালী গ্রামে স্থানীয় চাঁদপুর ও শিয়ালী গ্রামের কিছু লোক দ্বারা মন্দির ও বাড়ী ঘর ভাঙ্গার মত ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটে।

।এ ঘটনায় পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি শক্তিপদ বসু বাদী হয়ে খুলনা জেলার রুপসা থানায় একটি মামলা দায়ের করে। এই ন্যাক্কারজনক ঘটনার পর দশ জন কে পুলিশ গ্রেফতার করে। বাকি এ ঘটনার সাথে জড়িত আসামীদের গ্রেফতারের লক্ষে র‌্যাব-৬, ছায়া তদন্ত শুরু করে এবং উক্ত ঘটনার পর আসামীদের গ্রেফতারের উদ্দেশ্যে র‌্যাব গোয়েন্দা তৎপরতা অব্যাহত রাখে।


এই বিভাগের আরো সংবাদ