এপিসিতে অগ্নিসংযোগের মূলহোতা প্রীতম গাজীপুর থেকে গ্রেফতার

সরাইল (ব্রাহ্মণবাড়িয়া)প্রতিনিধিঃ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতে ইসলামের হরতালের দিন পুলিশের এপিসিতে পেট্রল দিয়ে অগ্নিসংযোগের মূলহোতা জাকারিয়া আহমেদ প্রীতমকে (২৮) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শনিবার (৮ মে) বিকেল ৪টার সময় গাজিপুর থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পুলিশের একটি টিম তাকে গ্রেফতার করে।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ ও প্রশাসন) মো. রহিছ উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেন। প্রীতম সরাইল উপজেলার নোয়াগাঁও ইউনিয়নের পশ্চিমপাড়ার নাছির উদ্দীনের ছেলে।

রহিছ উদ্দিন জানান, গ্রেফতার জাকারিয়া আহমেদ প্রীতম এপিসিতে অগ্নিসংযোগ পরবর্তীতে পুলিশের গুলিতে আহত হয়ে গাজিপুরে আত্মগোপনে থেকে ভাড়া বাসায় চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। এপিসি পোড়ানোর ভিডিও ফুটেজ দেখে তাকে শনাক্ত করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে বিশ্বরোড এলাকায় ভাংচুর, অগ্নিসংযোগ ও সহিংসতায় নিজের সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করে সে।

উল্লেখ্যঃ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরের প্রতিবাদ এবং ঢাকা ও চট্টগ্রামে মাদরাসা ছাত্রদের ওপর পুলিশি অ্যাকশনের খবরে গত ২৬-২৮ মার্চ পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ব্যাপক তাণ্ডব চালায় হেফাজতে ইসলামের কর্মীরা। এ সময় ৩৮টি সরকারি-বেসরকারি স্থাপনায় হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে। এ ঘটনায় নিহত হয় ১২ জন। এসব ঘটনায় ৫৬টি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এর মধ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানায় ৪৯টি, আশুগঞ্জ থানায় ৪টি, সরাইল থানায় ২টি ও রেলওয়ে থানায় ১টি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এর মধ্যে মামলায় ৪১৪ জন এজাহারনামীয় আসামীসহ অজ্ঞাতনামা ৩০-৩৫ হাজার মানুষকে আসামী করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *