সাংবাদিকদের উপর হামলা মামলার প্রতিবাদে আরআরইউ’র বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

ইউসুফ আলী চৌধুরী-রাজশাহী প্রতিনিধিঃ প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে সচিবালয়ে আটকে রেখে হেনস্তা করে মিথ্যা মামলায় গ্রেফতারসহ সারাদেশে সাংবাদিকদের উপর হামলা মামলার প্রতিবাদে এবং গ্রেফতারকৃদের মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মানববন্ধন করেছে রাজশাহী রিপোর্টার্স ইউনিটি (আরআরইউ)।
বুধবার(১৯ মে)বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নগরীর আলুপট্রির মোড়ে এ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। রাজশাহী রিপোর্টার্স ইউনিটি সভাপতি এস.এম. আব্দুল মুগনী নীরোর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক মঈন উদ্দীন এর পরিচালনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, রাজশাহী রিপোর্টার্স ইউনিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি মাসুদ রানা রাব্বানী, রাজশাহী ফটো জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ও আরআরইউ‘র নির্বাহী সদস্য আসাদুজ্জামান আসাদ প্রমূখ। এ সময় রাজশাহীতে কর্মরত বিভিন্ন মিডিয়ার প্রায় শতাধিক সংবাদকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
বক্তারা বলেন, প্রথম আলোর সিনিয়র সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের সঙ্গে যে আচরণ করা হয়েছে, তা ন্যক্কারজনক এবং সারাদেশে যেভাবে সাংবাদিকদের উপর হামলা-মামলাসহ নির্যাতন চলছে এসমস্ত ঘটনায় সাংবাদিকেরা উদ্বিগ্ন, ক্ষুব্ধ ও বিস্মিত। তারা আরও বলেন, ‘আমরা লক্ষ্য করছি সাম্প্রতিক সময়গুলোতে সাংবাদিক নির্যাতন বা হেনস্তার মতো ঘটনাগুলো দিন দিন আশঙ্কাজনকভাবে বৃদ্ধি পাচ্ছে যা গণমাধ্যামের স্বাধীনতা হরণের পাঁয়তারা বলে আমরা মনে করছি। সাংবাদিকদের উপর হামলা নির্যাতন রোধে কঠোর আইন প্রণয়নের দাবি জানান সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ।
তারা বলেন, স্বাধীন ও অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা এবং মুক্ত গণমাধ্যমের প্রতি ধারাবাহিক আক্রোশেরই প্রতিফলন হচ্ছে সাংবাদিকরা। রোজিনা ইসলামকে আটক ও হেনস্তার নিন্দা জানিয়ে তারা বলেন, বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের মাধ্যমে জনগণের তথ্য পাওয়ার অধিকার নিশ্চিত করতে রোজিনা ইসলাম কাজ করছেন। এ ঘটনা গণমাধ্যমের স্বাধীনতা ও সাংবাদিকদের পেশাগত দায়িত্ব পালনের ক্ষেত্রে একটি অত্যন্ত বাজে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে, যা কোনোভাবেই প্রত্যাশিত নয়।
বক্তারা আরো বলেন, এ ঘটনায় তারা স্বাস্থ্য সচিবকে ধিক্কার জানান এবং সাংবাদিক রোজিনা ইসলামসহ কারাবরণকারী সকল সাংবাদিকদের অবিলম্বে মুক্তির দাবি করেন এবং এ ঘটনার সুষ্ঠ তদন্তের মাধ্যমে দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *