রাজধানীর মহাখালীর সাততলা বস্তিতে ভয়াআগুন

ডেস্ক রিপোর্টঃ রাজধানীর মহাখালীর সাততলা বস্তিতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। সোমবার (৭ জুন) ভোর ৫ টার দিকে এই আগুন লাগে। আগুন নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ১৮ টি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। আগুনের সূত্রপাত কীভাবে তা এখনো জানা যায়নি। ফায়ার সার্ভিস ও এলাকাবাসীর প্রাণান্তকর চেষ্টায় দীর্ঘ প্রায় দুই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে। তবে তার আগেই পুড়ে গেছে কয়েকশ’ ঘর।

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের কন্ট্রোল রুমের ডিউটি অফিসার কামরুল হোসেন বলেন, আগুন লাগার খবরে ফায়ার সার্ভিসের একে একে ১৮ টি ইউনিট ঘটনাস্থলে গেছে। ফায়ার সার্ভিসকর্মীদের সঙ্গে বস্তির বাসিন্দারাও আগুন নেভাতে চেষ্টা করছেন। এখনো হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি। তবে পুড়ে গেছে কয়েকশ’ ঘর।

ভয়াবহ এই আগুন নেভাতে পার্শ্ববর্তী জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউট, সংক্রামক ব্যাধি হাসপাতালসহ বিভিন্ন জলাশয় থেকে পানি আনছেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। তাদের পাশাপাশি সাধারণ মানুষও আগুন নেভানোর প্রাণপণ চেষ্টা করে। বাতাসে আগুন দ্রুত চারদিকে ছড়িয়ে পড়ায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে হিমশিম খেতে হয়।

আগুনে ঘর পুড়ে যাওয়া এক নারী বলেন, শুধু কোলের বাচ্চাটাকে নিয়ে বের হয়ে গেলাম, আমার সব পুড়ে গেল। আমার সব শেষ হয়ে গেল। আরেকজন ভুক্তভোগী বলেন, এখন আর ভিডিও করে কী হবে, আপনারা কিচ্ছু করতে পারবেন না, আমার বাড়ির সব পুড়ে গেছে, আমি নিজে আজকে লাশ হয়ে যেতাম।

আগুন নিয়ন্ত্রণে আসলেও বস্তির ভেতরে বিভিন্ন জায়গায় এখনো ধোয়া দেখা যাচ্ছে। সাততলা বস্তিতে প্রায় ৪ থেকে সাড়ে ৪ হাজার ঘর ছিল। বেশিরভাগ স্থাপনাই এখন এক ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *