ঢাকা ০৩:২৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

আমতলীতে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে কুপিয়ে জখম

সাইফুল্লাহ নাসির, আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধিঃ বরগুনার আমতলী উপজেলার আঠারগাছিয়া ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আশিক তালুকদার (২৫) কে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।

স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, আশিক তালুকদার এর সাথে তার সৎ ভাই মোঃ রেজা তালুকদার ও সিরাজুল ইসলাম তালুকদার এর মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধ চলছিল। ঘটনার দিন (২১ নভেম্বর) সকাল ১০ টার দিকে আশিক বাঁশ কাটতে যায় এ সময় রেজা তালুকদার ও সিরাজুল ইসলাম তালুকদার বাধা দিলে তাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে আশিক তালুকদারকে দেশী গাছ কাটার দা দিয়ে মাথায় আঘাত করা হয়।পরে আশিক তালুকদারের চিৎকার শুনে স্থানীয়রা দৌড়ে এসে তাকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার শারীরিক অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আশিক তালুকদার বলেন,গৃহস্থালি কাজের জন্য বাঁশঝার থেকে বাঁশ কাটতে গেলে তারা আমাকে বাধা দেয়। বাধা উপেক্ষা করে বাঁশ কাটতে গেলে তারা আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যে জখম করে।

রেজা তালুকদার ও সিরাজুল ইসলাম তালুকদারকে একাধিকবার মুঠোফোনে চেষ্টা করলেও তাদের বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডিউটিট রত চিকিৎসক বলেন,আশিক তালুকদারের মাথায় আঘাত গুরুতর। উন্নত চিকিৎসার জন্য পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

এ ব্যপারে আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (অফিসার ইনচার্জ) এ,কে,এম মিজানুর রহমান বলেন,বিষয়টি শুনেছি এখনো লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত পূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

আমতলীতে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে কুপিয়ে জখম

আপডেট সময় ১১:১৯:৪৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২১ নভেম্বর ২০২২

সাইফুল্লাহ নাসির, আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধিঃ বরগুনার আমতলী উপজেলার আঠারগাছিয়া ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আশিক তালুকদার (২৫) কে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।

স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, আশিক তালুকদার এর সাথে তার সৎ ভাই মোঃ রেজা তালুকদার ও সিরাজুল ইসলাম তালুকদার এর মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধ চলছিল। ঘটনার দিন (২১ নভেম্বর) সকাল ১০ টার দিকে আশিক বাঁশ কাটতে যায় এ সময় রেজা তালুকদার ও সিরাজুল ইসলাম তালুকদার বাধা দিলে তাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে আশিক তালুকদারকে দেশী গাছ কাটার দা দিয়ে মাথায় আঘাত করা হয়।পরে আশিক তালুকদারের চিৎকার শুনে স্থানীয়রা দৌড়ে এসে তাকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার শারীরিক অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আশিক তালুকদার বলেন,গৃহস্থালি কাজের জন্য বাঁশঝার থেকে বাঁশ কাটতে গেলে তারা আমাকে বাধা দেয়। বাধা উপেক্ষা করে বাঁশ কাটতে গেলে তারা আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যে জখম করে।

রেজা তালুকদার ও সিরাজুল ইসলাম তালুকদারকে একাধিকবার মুঠোফোনে চেষ্টা করলেও তাদের বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডিউটিট রত চিকিৎসক বলেন,আশিক তালুকদারের মাথায় আঘাত গুরুতর। উন্নত চিকিৎসার জন্য পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

এ ব্যপারে আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (অফিসার ইনচার্জ) এ,কে,এম মিজানুর রহমান বলেন,বিষয়টি শুনেছি এখনো লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত পূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।