ঢাকা ০২:১০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জামালপুরে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে যুবক খুন

জামালপুর প্রতিনিধি: জামালপুর শহরে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে হাবিল ২৭ নামে এক যুবক খুন হয়েছে।

মঙ্গলবার রাতে জামালপুর শহরের মুকন্দবাড়ি এলাকায় এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে।
নিহত হাবিল শহরের উত্তর
কাচারীপাড়ার ইসমাইল হোসেনের ছেলে। সে পেশায় রং মিস্ত্রির কাজ করতো।

রাত সাড়ে ১০টায় সদর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) কাজী শাহনেওয়াজ প্রেসব্রিফিংয়ে জানান, হাবিল ও চাঁন মিয়ে এক সাথে রং মিস্ত্রির কাজ করতো। দুজনের মধ্যে বন্ধুত্ব ছিল। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৭টায় দুজনেই মেথর পট্রিতে মদ খেতে যায়। তুচ্ছ ঘটনায় হাবিল ও চাঁন মিয়ার মধ্যে ঝগড়া বাঁধে। এক পর্যায়ে হাবিল চাঁন মিয়ার মা বোনকে নিয় অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। এতে চাঁন মিয়া ক্ষিপ্ত হয়ে হাবিলকে উপর্যপুরি ছুরিকাঘাত করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে আহত হাবিলকে উদ্ধার করে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। ঘটনাস্থল থেকে রক্তমাখা চাকুসহ চাঁন মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
ওসি আরো জানান, এ ঘটনায় নিহত হাবিলের বাবা ইসমাইল হোসেন বাদি হয়ে জামালপুর সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

আপলোডকারীর তথ্য

জামালপুরে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে যুবক খুন

আপডেট সময় ১২:৫৪:২৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ১০ মে ২০২৩

জামালপুর প্রতিনিধি: জামালপুর শহরে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে হাবিল ২৭ নামে এক যুবক খুন হয়েছে।

মঙ্গলবার রাতে জামালপুর শহরের মুকন্দবাড়ি এলাকায় এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে।
নিহত হাবিল শহরের উত্তর
কাচারীপাড়ার ইসমাইল হোসেনের ছেলে। সে পেশায় রং মিস্ত্রির কাজ করতো।

রাত সাড়ে ১০টায় সদর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) কাজী শাহনেওয়াজ প্রেসব্রিফিংয়ে জানান, হাবিল ও চাঁন মিয়ে এক সাথে রং মিস্ত্রির কাজ করতো। দুজনের মধ্যে বন্ধুত্ব ছিল। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৭টায় দুজনেই মেথর পট্রিতে মদ খেতে যায়। তুচ্ছ ঘটনায় হাবিল ও চাঁন মিয়ার মধ্যে ঝগড়া বাঁধে। এক পর্যায়ে হাবিল চাঁন মিয়ার মা বোনকে নিয় অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। এতে চাঁন মিয়া ক্ষিপ্ত হয়ে হাবিলকে উপর্যপুরি ছুরিকাঘাত করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে আহত হাবিলকে উদ্ধার করে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। ঘটনাস্থল থেকে রক্তমাখা চাকুসহ চাঁন মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
ওসি আরো জানান, এ ঘটনায় নিহত হাবিলের বাবা ইসমাইল হোসেন বাদি হয়ে জামালপুর সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।