ঢাকা ০৩:৫২ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বাগেরহাটে লোকালয়ে বাঘ আতংকে বনবিভাগের মাইকিং

অতনু চৌধুরী (রাজু), বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধিঃ বাগেরহাটের শরণখোলার লোকালয়ে বাঘ আতংক দেখা দিয়েছে। বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার সুন্দরবন সংলগ্ন সোনাতলা গ্রামের রাস্তা, বেড়ীবাঁধ ও পুকুর পাড়ে বাঘের একাধিক পায়ের ছাপ দেখা যায়। গ্রামবাসীদের সচেতন করতে বনবিভাগ মাইকিং করছে।

সুন্দরবনের ভোলা ফরেস্ট টহল ফাঁড়ির বনরক্ষী আঃ রহিম বলেন, গ্রামে বাঘ আসার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে বাঘের পায়ের ছাপ দেখা যায়। বন সুরক্ষায় নিয়োজিত সিপিজি (কমিউনিটি পেট্রোল গ্রুপ) সহ-সভাপতি মোঃ শহীদুল ইসলাম সাচ্চু বলেন,বুধবার দিবাগত রাতের কোন এক সময় সুন্দরবন থেকে রয়েল বেঙ্গল টাইগার ভোলা নদী পার হয়ে সোনাতলা গ্রামের আবু ভদ্রের বাড়ির দক্ষিণ পাশ দিয়ে গ্রামে ঢুকে পড়ে। বৃহস্পতিবার সকালে গ্রামের আঃ মালেক, আসলাম ভদ্র, হারুন হাওলাদারের বাড়ির পুকুর পাড় সহ বিভিন্ন স্থানে বাঘের একাধিক পায়ের ছাপ দেখা যায়। বাঘের পায়ের ছাপ দেখে ধারণা করা হচ্ছে দুটি বাঘ গ্রামে ঢুকেছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বনবিভাগ গ্রামবাসীদের সাবধানে চলাচলের জন্য মাইকিং শুরু করেছে।পূর্ব সুন্দরবনের রেঞ্জকর্মকর্তা মোহাম্মদ শামসূল আরেফিন জানিয়েছেন বাঘের পায়ের ছাপ ট্রেস করে আমরা মোটামুটি নিশ্চিত হয়েছি যে বাঘ বনে ফিরে গেছে, তবে সতর্কতা অবলম্বনের জন্য বনবিভাগের পক্ষ থেকে এলাকায় মাইকিং করা হচ্ছে। এ বিষয়ে

সুন্দরবন পূর্ব বন বিভাগ বাগেরহাট এর বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) মুহাম্মদ বেলায়েত হোসেন বলেন, বাঘ সুন্দরবনে ফিরিয়ে নিতে লোকালয়ে বাঘের সন্ধান করার জন্য বনরক্ষীদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে এবং জনসাধারণের সচেতন করতে বনবিভাগ ইতোমধ্যে মাইকিং শুরু করেছে।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

বাগেরহাটে লোকালয়ে বাঘ আতংকে বনবিভাগের মাইকিং

আপডেট সময় ১১:৫৪:০৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১২ জানুয়ারী ২০২৩

অতনু চৌধুরী (রাজু), বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধিঃ বাগেরহাটের শরণখোলার লোকালয়ে বাঘ আতংক দেখা দিয়েছে। বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার সুন্দরবন সংলগ্ন সোনাতলা গ্রামের রাস্তা, বেড়ীবাঁধ ও পুকুর পাড়ে বাঘের একাধিক পায়ের ছাপ দেখা যায়। গ্রামবাসীদের সচেতন করতে বনবিভাগ মাইকিং করছে।

সুন্দরবনের ভোলা ফরেস্ট টহল ফাঁড়ির বনরক্ষী আঃ রহিম বলেন, গ্রামে বাঘ আসার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে বাঘের পায়ের ছাপ দেখা যায়। বন সুরক্ষায় নিয়োজিত সিপিজি (কমিউনিটি পেট্রোল গ্রুপ) সহ-সভাপতি মোঃ শহীদুল ইসলাম সাচ্চু বলেন,বুধবার দিবাগত রাতের কোন এক সময় সুন্দরবন থেকে রয়েল বেঙ্গল টাইগার ভোলা নদী পার হয়ে সোনাতলা গ্রামের আবু ভদ্রের বাড়ির দক্ষিণ পাশ দিয়ে গ্রামে ঢুকে পড়ে। বৃহস্পতিবার সকালে গ্রামের আঃ মালেক, আসলাম ভদ্র, হারুন হাওলাদারের বাড়ির পুকুর পাড় সহ বিভিন্ন স্থানে বাঘের একাধিক পায়ের ছাপ দেখা যায়। বাঘের পায়ের ছাপ দেখে ধারণা করা হচ্ছে দুটি বাঘ গ্রামে ঢুকেছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বনবিভাগ গ্রামবাসীদের সাবধানে চলাচলের জন্য মাইকিং শুরু করেছে।পূর্ব সুন্দরবনের রেঞ্জকর্মকর্তা মোহাম্মদ শামসূল আরেফিন জানিয়েছেন বাঘের পায়ের ছাপ ট্রেস করে আমরা মোটামুটি নিশ্চিত হয়েছি যে বাঘ বনে ফিরে গেছে, তবে সতর্কতা অবলম্বনের জন্য বনবিভাগের পক্ষ থেকে এলাকায় মাইকিং করা হচ্ছে। এ বিষয়ে

সুন্দরবন পূর্ব বন বিভাগ বাগেরহাট এর বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) মুহাম্মদ বেলায়েত হোসেন বলেন, বাঘ সুন্দরবনে ফিরিয়ে নিতে লোকালয়ে বাঘের সন্ধান করার জন্য বনরক্ষীদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে এবং জনসাধারণের সচেতন করতে বনবিভাগ ইতোমধ্যে মাইকিং শুরু করেছে।