ঢাকা ০২:৩৩ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মনিরামপুরে স্কুল ছাত্রী অপহরণের ৮ দিন পর উদ্ধার

  • যশোর প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময় ০৩:৩৮:১৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩
  • ১২২ বার পড়া হয়েছে

যশোরের মণিরামপুরের ৯ম শ্রেণির (১৪) এক স্কুলছাত্রীকে অপহরণের ৮ দিন পর উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার (৩০ জানুয়ারি) রাতে মণিরামপুর থানা পুলিশ টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশের সহায়তায় নারায়ণগঞ্জ বন্দর এলাকা থেকে তাকে উদ্ধার করে।এ সময় অপহরণকারী সান তারক দাসকে (২৫) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সান তারক মোহনপুরের হরলাল দাসের ছেলে। এর আগে সোমবার (২৩ জানুয়ারি) স্কুলে যাওয়ার পথে মণিরামপুর পৌর শহরের একটি বিদ্যালয়ের সামনে থেকে অপহরণের শিকার হয় ওই ছাত্রী। এরপর শুক্রবার (২৭ জানুয়ারি) মণিরামপুর থানায় মামলা করেন ওই ছাত্রীর স্কুল শিক্ষক বাবা।

মামলা সূত্রে জানা যায়, স্কুলে আসা-যাওয়ার পথে যুবক সান তারক ওই ছাত্রীকে উত্যক্ত করতেন। বাদী বিষয়টি যুবকের অভিভাবককে জানিয়ে প্রতিকার পাননি।আজ মঙ্গলবার (৩১ জানুয়ারি) যোগাযোগ করা হলে বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে চাননি বাদীপক্ষ।

মণিরামপুর থানার এএসআই সোহেল রানা পারভেজ জানান, তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে ওই যুবক ও স্কুলছাত্রীর অবস্থান নির্ণয় করে গতকাল ৩০ জানুয়ারি সোমবার আমরা টঙ্গী পশ্চিম থানায় যাই। এরপর সেখান থেকে অতিরিক্ত পুলিশ নিয়ে সন্ধ্যা ৭টার দিকে নারায়ণগঞ্জ বন্দর এলাকার অভিযানে গেলে সেখানে একটি বাজারে তাদের দুইজনকে একসাথে পাই।আজ মঙ্গলবার ভোরে আমরা ছেলে মেয়েকে নিয়ে মণিরামপুরে পৌঁছেছি। নারায়ণগঞ্জে দূরসম্পর্কের এক আত্মীয়ের বাসায় মেয়েটিকে নিয়ে আশ্রয় নিয়েছিলো সান তারক। সোমবার সন্ধ্যায় তারা সে বাসা থেকে ঘুরতে বের হয়।

এদিকে স্থানীয় একটি সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ওই ছাত্রীর সাথে সান তারকের সম্পর্ক। সেই সূত্রে এক সপ্তাহ আগে তারা পালিয়ে গেছে।

মণিরামপুর থানার ওসি শেখ মনিরুজ্জামান বলেন, ঘটনা শোনার পর আমরা ছায়া তদন্ত শুরু করি। মামলা পাওয়ার পর ওই ছাত্রীকে উদ্ধার অভিযানে নামে থানার টিম। সোমবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জ থেকে তাদের আটক করা হয়। গ্রেফতারকৃত সান তারক দাসকে আজ মঙ্গলবার আদালতে সোপর্দ করা হয়।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

মনিরামপুরে স্কুল ছাত্রী অপহরণের ৮ দিন পর উদ্ধার

আপডেট সময় ০৩:৩৮:১৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩

যশোরের মণিরামপুরের ৯ম শ্রেণির (১৪) এক স্কুলছাত্রীকে অপহরণের ৮ দিন পর উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার (৩০ জানুয়ারি) রাতে মণিরামপুর থানা পুলিশ টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশের সহায়তায় নারায়ণগঞ্জ বন্দর এলাকা থেকে তাকে উদ্ধার করে।এ সময় অপহরণকারী সান তারক দাসকে (২৫) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সান তারক মোহনপুরের হরলাল দাসের ছেলে। এর আগে সোমবার (২৩ জানুয়ারি) স্কুলে যাওয়ার পথে মণিরামপুর পৌর শহরের একটি বিদ্যালয়ের সামনে থেকে অপহরণের শিকার হয় ওই ছাত্রী। এরপর শুক্রবার (২৭ জানুয়ারি) মণিরামপুর থানায় মামলা করেন ওই ছাত্রীর স্কুল শিক্ষক বাবা।

মামলা সূত্রে জানা যায়, স্কুলে আসা-যাওয়ার পথে যুবক সান তারক ওই ছাত্রীকে উত্যক্ত করতেন। বাদী বিষয়টি যুবকের অভিভাবককে জানিয়ে প্রতিকার পাননি।আজ মঙ্গলবার (৩১ জানুয়ারি) যোগাযোগ করা হলে বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে চাননি বাদীপক্ষ।

মণিরামপুর থানার এএসআই সোহেল রানা পারভেজ জানান, তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে ওই যুবক ও স্কুলছাত্রীর অবস্থান নির্ণয় করে গতকাল ৩০ জানুয়ারি সোমবার আমরা টঙ্গী পশ্চিম থানায় যাই। এরপর সেখান থেকে অতিরিক্ত পুলিশ নিয়ে সন্ধ্যা ৭টার দিকে নারায়ণগঞ্জ বন্দর এলাকার অভিযানে গেলে সেখানে একটি বাজারে তাদের দুইজনকে একসাথে পাই।আজ মঙ্গলবার ভোরে আমরা ছেলে মেয়েকে নিয়ে মণিরামপুরে পৌঁছেছি। নারায়ণগঞ্জে দূরসম্পর্কের এক আত্মীয়ের বাসায় মেয়েটিকে নিয়ে আশ্রয় নিয়েছিলো সান তারক। সোমবার সন্ধ্যায় তারা সে বাসা থেকে ঘুরতে বের হয়।

এদিকে স্থানীয় একটি সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ওই ছাত্রীর সাথে সান তারকের সম্পর্ক। সেই সূত্রে এক সপ্তাহ আগে তারা পালিয়ে গেছে।

মণিরামপুর থানার ওসি শেখ মনিরুজ্জামান বলেন, ঘটনা শোনার পর আমরা ছায়া তদন্ত শুরু করি। মামলা পাওয়ার পর ওই ছাত্রীকে উদ্ধার অভিযানে নামে থানার টিম। সোমবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জ থেকে তাদের আটক করা হয়। গ্রেফতারকৃত সান তারক দাসকে আজ মঙ্গলবার আদালতে সোপর্দ করা হয়।