ঢাকা ০৫:৩০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সাভারে নিখোঁজের তিন দিন পর স্কুল ছাত্রী মায়মুনা আক্তার মিম্মা উদ্ধার

মোঃ শাহিন আলম আশিক

আশুলিয়া থানাধীন পল্লী বিদ্যুত এলাকার সাভার ডিওএইচএস সেনা পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্রী মায়মুনা আক্তার মিম্মা নিখোঁজের তিন দিন পর উদ্ধার করা হয়েছে।

গত ২১ ফেব্রুয়ারী বুধবার রাত আনুমানিক ০৯/৩০ মিনিট এ-র পর থেকে মিম্মা কে পাওয়া যাচ্ছিল না। মিম্মার পরিবার আশপাশের প্রতিবেশী ও আত্মীয় স্বজনদের বাড়ি খোঁজাখুজী করে তার সন্ধান পাওয়া না গেলে নিখোঁজ মিম্মার পরিবার বিষয়টি আশুলিয়া থানা পুলিশ কে অবগত করে একটি সাধারণ ডাইরি করেন।

আশুলিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ বিষয়টি অতিব গুরুত্বের সাথে ব্যাবস্হা নিতে, এস আই মিলন ফকিরকে নির্দেশ প্রদান করেন।
এস আই মিলন ফকির এ-র বিশেষ উদ্যোগে ও আশুলিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান শাহাবুদ্দিনের সহযোগিতায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ২৪ ফেব্রুয়ারী রাত আনুমানিক ১১:৫০ মিনিট এ মায়মুনা আক্তার মিম্মা কে উদ্ধার করতে সফল হয়।

এ-ই প্রতিবেদন লিখার সময় মায়মুনা আক্তার মিম্মা আশুলিয়া থানা হেফাজতে রয়েছে। উক্ত বিষয় এস আই মিলন ফকির কে প্রশ্ন করলে, তিনি জানান, ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার এ অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

সাভারে নিখোঁজের তিন দিন পর স্কুল ছাত্রী মায়মুনা আক্তার মিম্মা উদ্ধার

আপডেট সময় ১২:৩৭:০০ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

মোঃ শাহিন আলম আশিক

আশুলিয়া থানাধীন পল্লী বিদ্যুত এলাকার সাভার ডিওএইচএস সেনা পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্রী মায়মুনা আক্তার মিম্মা নিখোঁজের তিন দিন পর উদ্ধার করা হয়েছে।

গত ২১ ফেব্রুয়ারী বুধবার রাত আনুমানিক ০৯/৩০ মিনিট এ-র পর থেকে মিম্মা কে পাওয়া যাচ্ছিল না। মিম্মার পরিবার আশপাশের প্রতিবেশী ও আত্মীয় স্বজনদের বাড়ি খোঁজাখুজী করে তার সন্ধান পাওয়া না গেলে নিখোঁজ মিম্মার পরিবার বিষয়টি আশুলিয়া থানা পুলিশ কে অবগত করে একটি সাধারণ ডাইরি করেন।

আশুলিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ বিষয়টি অতিব গুরুত্বের সাথে ব্যাবস্হা নিতে, এস আই মিলন ফকিরকে নির্দেশ প্রদান করেন।
এস আই মিলন ফকির এ-র বিশেষ উদ্যোগে ও আশুলিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান শাহাবুদ্দিনের সহযোগিতায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ২৪ ফেব্রুয়ারী রাত আনুমানিক ১১:৫০ মিনিট এ মায়মুনা আক্তার মিম্মা কে উদ্ধার করতে সফল হয়।

এ-ই প্রতিবেদন লিখার সময় মায়মুনা আক্তার মিম্মা আশুলিয়া থানা হেফাজতে রয়েছে। উক্ত বিষয় এস আই মিলন ফকির কে প্রশ্ন করলে, তিনি জানান, ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার এ অভিযান অব্যাহত রয়েছে।