ঢাকা ০৩:২৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo কুমিল্লা- সিলেট মহাসড়ক অবরুদ্ধ করে রেখেছে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা Logo ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা’র সহধর্মীনি এডভোকেট সিগমা হুদার ইন্তেকাল Logo আমতলীতে ২য় শ্রেণির মাদ্রাসা ছাত্রী ধর্ষণ, ধর্ষক আটক Logo বাঘাইছড়িতে ছাত্রলীগের প্রতিবাদ মিছিল Logo সরাইলে কোটাবিরোধী আন্দোলনকারীদের সাথে ছাত্রলীগের সংঘর্ষ Logo ভাঙ্গায় দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-৩ আহত ৪০ Logo রূপসায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন Logo শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে মুরাদনগরে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ Logo সদরপুরে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের সাথে পুলিশের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া Logo যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাসিম এর মুত‍্যু বার্ষিকী পালিত

এবার আপা বলায় সাংবাদিকদের ওপর চটলেন ডাক্তার নিরুপমা

এবার আপা বলায় সাংবাদিকদের ওপর
চটলেন মানিকগঞ্জের ডাক্তার নিরুপমা পাল। বললেন ‘আপা’ নয় তাকে ‘ম্যাডাম’ বলতে হবে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ডাক্তারের রেগে যাওয়ার একটি ভিডিও সম্প্রতি ভাইরাল হয়েছে।

২৩ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে দেখা যায়, হাসপাতালে ওই ডাক্তারের ইন্টারভিউ করছিলেন স্থানীয় সাংবাদিকরা। এক সাংবাদিক ওই ডাক্তারকে প্রশ্ন করেন, আপা আপনার নাম কী?

এ সময় নিরুপমা পাল জানিয়ে ওই ডাক্তার রেগে গিয়ে বলেন, ‘আপনি আমাকে আপা বলছেন কেন।’ এ সময় পাশ থেকে আরেকজন জানতে চান তাহলে আপনাকে কী বলতে হবে ‘ম্যাডাম’। তখন ডাক্তার নিরুপমা পাল বলেন ‘হ্যা অবশ্যই’।

তখন সাংবাদিকরা প্রশ্ন করেন কেন আপনাকে ‘ম্যাডাম’ বলতে হবে। এ সময় ওই নারী ডাক্তার পাশের একজনকে বলেন, আচ্ছা উনি কেন আমাকে হেরাজ করতেছে বলেন। তখন অন্য একজনকে বলতে শোনা যায় আপনিইতো প্রথমে শুরু করলেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, নিরুপমা পাল মানিকগঞ্জের সিঙ্গাইর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মেডিকেল অফিসার হিসেবে কর্মরত। সম্প্রতি সিঙ্গাইরে একটি মারামারির ঘটনায় আহতদের ইনজুরি সার্টিফিকেটে ভুল তথ্য দেওয়ার অভিযোগ ওঠে ওই ডাক্তারের বিরুদ্ধে। এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার (২৪ মার্চ) বিকেলে স্থানীয় কয়েকজন সাংবাদকর্মী তার বক্তব্য জানতে হাসপাতালে গেলে এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়।

পরে বিপ্লব শান্ত নামে এক সংবাদকর্মী ফেসবুকে ভিডিওটি আপলোড করেন। যা মুহূর্তেই নেট দুনিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে।

এ বিষয়ে বক্তব্য জানতে ডাক্তার নিরুপমা পালের মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে ফোনটি তার স্বামী ডাক্তার পার্থ রিসিভ করেন।

তিনি জানান, ভাইরাল ভিডিও নিয়ে তার স্ত্রী মানসিকভাবে কিছুটা বিপর্যস্ত। এ বিষয়ে তিনি কোনো কথা বলতে চান না।

মানিকগঞ্জ জেলা সিভিল সার্জন ডা. মো. মোয়াজ্জেম আলী জানান, ডাক্তারের রেগে যাওয়ার ভিডিও ভাইরাল হওয়ার বিষয়টি তিনি জেনেছেন। তবে এটি স্থানীয় সাংবাদিকদের সঙ্গে একটা ভুল বোঝাবুঝির ঘটনা ছিল। পরে বিষয়টি মীমাংসা হয়েছে। একইসঙ্গে ভবিষ্যতে যাতে এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি না হয় সে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

আপলোডকারীর তথ্য

কুমিল্লা- সিলেট মহাসড়ক অবরুদ্ধ করে রেখেছে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা

এবার আপা বলায় সাংবাদিকদের ওপর চটলেন ডাক্তার নিরুপমা

আপডেট সময় ০৯:৪১:৩৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৯ মার্চ ২০২৩

এবার আপা বলায় সাংবাদিকদের ওপর
চটলেন মানিকগঞ্জের ডাক্তার নিরুপমা পাল। বললেন ‘আপা’ নয় তাকে ‘ম্যাডাম’ বলতে হবে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ডাক্তারের রেগে যাওয়ার একটি ভিডিও সম্প্রতি ভাইরাল হয়েছে।

২৩ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে দেখা যায়, হাসপাতালে ওই ডাক্তারের ইন্টারভিউ করছিলেন স্থানীয় সাংবাদিকরা। এক সাংবাদিক ওই ডাক্তারকে প্রশ্ন করেন, আপা আপনার নাম কী?

এ সময় নিরুপমা পাল জানিয়ে ওই ডাক্তার রেগে গিয়ে বলেন, ‘আপনি আমাকে আপা বলছেন কেন।’ এ সময় পাশ থেকে আরেকজন জানতে চান তাহলে আপনাকে কী বলতে হবে ‘ম্যাডাম’। তখন ডাক্তার নিরুপমা পাল বলেন ‘হ্যা অবশ্যই’।

তখন সাংবাদিকরা প্রশ্ন করেন কেন আপনাকে ‘ম্যাডাম’ বলতে হবে। এ সময় ওই নারী ডাক্তার পাশের একজনকে বলেন, আচ্ছা উনি কেন আমাকে হেরাজ করতেছে বলেন। তখন অন্য একজনকে বলতে শোনা যায় আপনিইতো প্রথমে শুরু করলেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, নিরুপমা পাল মানিকগঞ্জের সিঙ্গাইর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মেডিকেল অফিসার হিসেবে কর্মরত। সম্প্রতি সিঙ্গাইরে একটি মারামারির ঘটনায় আহতদের ইনজুরি সার্টিফিকেটে ভুল তথ্য দেওয়ার অভিযোগ ওঠে ওই ডাক্তারের বিরুদ্ধে। এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার (২৪ মার্চ) বিকেলে স্থানীয় কয়েকজন সাংবাদকর্মী তার বক্তব্য জানতে হাসপাতালে গেলে এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়।

পরে বিপ্লব শান্ত নামে এক সংবাদকর্মী ফেসবুকে ভিডিওটি আপলোড করেন। যা মুহূর্তেই নেট দুনিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে।

এ বিষয়ে বক্তব্য জানতে ডাক্তার নিরুপমা পালের মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে ফোনটি তার স্বামী ডাক্তার পার্থ রিসিভ করেন।

তিনি জানান, ভাইরাল ভিডিও নিয়ে তার স্ত্রী মানসিকভাবে কিছুটা বিপর্যস্ত। এ বিষয়ে তিনি কোনো কথা বলতে চান না।

মানিকগঞ্জ জেলা সিভিল সার্জন ডা. মো. মোয়াজ্জেম আলী জানান, ডাক্তারের রেগে যাওয়ার ভিডিও ভাইরাল হওয়ার বিষয়টি তিনি জেনেছেন। তবে এটি স্থানীয় সাংবাদিকদের সঙ্গে একটা ভুল বোঝাবুঝির ঘটনা ছিল। পরে বিষয়টি মীমাংসা হয়েছে। একইসঙ্গে ভবিষ্যতে যাতে এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি না হয় সে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।